মাহমুদ আব্বাসকে ‘শান্তির দেবদূত’ বললেন পোপ

আমাদের নতুন সময় : 18/05/2015

06আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ফিলিস্তিনি নেতা মাহমুদ আব্বাসের সঙ্গে ভ্যাটিকানে মিলিত হয়ে তাকে ‘শান্তির দেবদূত’ বলে অভিহিত করেছেন পোপ ফ্রান্সিস। শনিবার সাক্ষাতের পর তারা দুজন প্রায় ২০ মিনিট কথাবার্তা বলেন। বুধবার এক ঘোষণায় ভ্যাটিকান জানিয়েছিল, তারা শিগগিরই ফিলিস্তিনের সঙ্গে একটি চুক্তিতে সই করতে যাচ্ছে, তাতে ফিলিস্তিনের ক্যাথলিক গির্জার মর্যাদা নির্দিষ্ট করাসহ ফিলিস্তিনকে রাষ্ট্র হিসেবে স্বীকৃতি দেয়ার বিষয়টিও অন্তর্ভুক্ত আছে। চুক্তিটি সই হলে তা হবে জাতিসংঘের এই দুই পর্যবেক্ষক সদস্য রাষ্ট্রের মধ্যে প্রথম আনুষ্ঠানিক দ্বিপাক্ষিক চুক্তি। ২০১২ সালে জাতিসংঘ ফিলিস্তিনকে পর্যবেক্ষক রাষ্ট্রের মর্যাদা দেয়ার পরপরই ফিলিস্তিনকে রাষ্ট্র হিসাবে বিবেচনা করে আসছে ভ্যাটিক্যান। এবারের চুক্তির মাধ্যমে সেটি আনুষ্ঠানিকভাবে স্বীকৃতি পাবে। এক বিবৃতিতে ভ্যাটিকান জানিয়েছে, পোপ ফ্রান্সিস এবং আব্বাস ইসরায়েলের সঙ্গে শান্তি প্রক্রিয়া নিয়ে কথা বলেছেন এবং ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যে শিগগিরই সরাসরি আলোচনা আবার শুরু হবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন।
সাক্ষাৎকালে পোপ ফ্রান্সিস আব্বাসকে শান্তিদূতের স্মারক একটি মেডেল দেন এবং ফিলিস্তিনি নেতাকে বলেন, তিনি তাকে ‘শান্তির দেবদূত’ মনে করেন। রোববার ভ্যাটিকানের সেন্ট পিটার্স স্কয়ারে এক ধর্মীয় অনুষ্ঠানের মাধ্যমে ফিলিস্তিনে খ্রিস্টীয় ক্যাথলিক ধারা প্রচলনকারী ফিলিস্তিনি নান ম্যারি আলফোনসাইন ঘাত্তাস ও বেথেলহেমে কারমেলাইট কনভেন্ট প্রতিষ্ঠা করা অপর ফিলিস্তিনি নান মরিয়ম বোয়ার্দি হাদ্দাদকে সন্ত ঘোষণা করা হবে।এই অনুষ্ঠানে পোপ ফ্রান্সিসের পাশাপাশি ফিলিস্তিনি নেতা আব্বাসও উপস্থিত থাকবেন।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]