খুবই অন্যায় হয়েছে আমার বোন ফারার উপর : তানিয়া

আমাদের নতুন সময় : 05/07/2018

মুহাম্মদ নাঈম : তেজগাঁ কলেজের প্রথম বর্ষের পলিটিকেল সাইন্সের ছাত্রী, কাউকে না জানিয়ে বাসা থেকে চুপি চুপি বের হয়েছিলো বোনটা আমার। জানলে হয়তো যেতে দেয়া হতো না কোন ভাবেই। আমরা কেউ চাই না ও কোন ঝামেলার ভিতর যাক। ফারার শাহাবাগ যাওয়াটা উচিৎ কি অনুচিত, বিষয়টি থেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ হলো ফারার সাথে ঘটে যাওয়া বিষয়টি, খুবই অন্যায় হয়েছে, আমার বোনের উপর। কি অপরাধ ছিলো, কুকুরের মতো একজন মানুষকে মারছিলো ছাত্রলীগ, তাকে বাঁচাতে এগিয়ে যাওয়াটা? কিভাবে পশুর মতো ঘিরে ছিলো বাচ্চা মেয়ে ফারাকে। ছাত্রলীগ লাঞ্চিত করার পরে শাহাবাগ থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ফারাকে আটক করে, পরে ছেড়ে দেয়। ফারার উপর হামলার ব্যাপারে আলাপকালে ফারার বোন, তানিয়া ইসলাম ঋতু আমাদের অর্থনীতিকে এসব কথা বলেন ।
তানিয়া ইসলাম বলেন, কোটা আন্দলনের সাথে আমার বোন ফারার কোন সম্পর্ক নেই । মানুষকে মারতে ছিল তাই লোকটাকে বাঁচানোর চেষ্টা করছিল এট কি অন্যায়? যতবার ভিডিও গুলো আর ছবিগুলো দেখছি কান্না ধরে রাখতে পারছিনা। এক দল শকুন ফারাকে কি করেছে সেটা বাস্তব চিত্র আপনারা দেখেছেন । আমাদের সময় কিভাবে কেটেছে একমাত্র আমরাই জানি। ওকে জীবিত ভাবে পেয়ে আমরা খুশি।
তানিয়া আরও বলেন, ফারার সাথে যা ঘটেছে দু:খ বসত হয়ে গেছে এটা নিয়ে কোন সমস্যা নেই ।
এত খারাপ লাগছে, ওর এমন ছবি আমাদের চোখের সামনে আসুক সেটা ভালো লাগছে না। ফারার যায়গায় নিজের আপন মানুষকে কল্পনা করুন, বুঝবেন অনুভূতিটা কি হয়। যেখানে ফারার সাথে কোন রাজনৈতিক দল অথবা কোন সংগঠনের সাথে কোন যোগসূত্রই নেই । অথচ সেখানে এমন একটি ঘটনা দেশের প্রতি, দেশের মানুষের প্রতি ঘৃণা করতে শুরু করতে যথেষ্ট। ফারা বলেই ফেলেছে, ‘আপু দেশের আইন কোথায় পাওয়া যায় বলতে পারো?’




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]