যুদ্ধাপরাধের দায়ে জামায়াতকে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হবে : আনিসুল হক

আমাদের নতুন সময় : 11/01/2019

মঈন মোশাররফ : আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, জামায়াত যুদ্ধাপরাধের সাথে জড়িত। আদালতের তিনটি রায়ে তা বের হয়ে এসেছে। সব সরকারই চায় তার অসম্পূর্ণ কাজগুলো দ্বিতীয় মেয়াদে সম্পূর্ণ করতে। আমাদের ইশতেহারে উক্ত বিচারকাজের বিষয়টি উল্লেখ ছিলো এবং এই বিচারকাজ বাস্তবায়ন করা হবে। গতকাল বৃহস্পতিবার বিবিসি বাংলাকে তিনি আরো বলেন, যুদ্ধাপরাধের দায়ে জামায়াতকে সংগঠন হিসেবে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হবে।

তিনি বলেন, ১৯৭২ সালে আমাদের সংবিধানে উল্লেখ ছিলো কোনো ধর্মভিত্তিক রাজনৈতিক দল থাকবে না। ১৯৭২ সালেই জামায়াত রাজনৈতিক সংগঠন হিসাবে বাতিল হয়। যুদ্ধাপরাধের দায়ে জামায়াতে ইসলামের বিচারের দাবি উঠেছিল অনেক আগেই। কিন্তু তখন দেখা গেছে, ইন্টারন্যাশনাল ট্রাইব্যুনাল অ্যাক্টে যে আইনটা আছে সেই আইনে তাদের বিচার করা যায় না, তার কারণ হচ্ছে ১৯৭৩ সালে এ আইন সংসদে পাস হয় আর জামায়াত ১৯৭২ সালেই রাজনৈতিক সংগঠন হিসাবে বাতিল হয়।

তিনি আরো বলেন, আদালতের রায়ের প্রেক্ষিতে জামায়াত যুদ্ধাপরাধ বা মানবতাবিরোধী অপরাধের বিচারের যে দাবি তা আইনের আওতায় আনার প্রক্রিয়া চলছিল। তখন আমি দুটি কথা বলেছিলাম, বর্তমানে যে আইন আছে সে আইনে তাদের বিচার করা যাবে না, বিচারকাজ সম্পূর্ণ করার জন্য আইনটি সংশোধন করা প্রয়োজন। বর্তমানে আইনটি সংশোধন খসড়া তৈরি করা হয়েছে। আইনটির সংশোধন খসড়া মন্ত্রিসভায় উত্থাপন করা হবে অনুমোদনের জন্য। খসড়া অনুমোদন হলেই জনগণের দাবি বাস্তবায়নের জন্য সব কাজ সম্পূর্ণ করা হবে। সম্পাদনা : আলমগীর




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]