বন্ড সুবিধার অপব্যবহার করায় পণ্যসহ ৩ ক্যাভার্ড ভ্যান জব্দ

আমাদের নতুন সময় : 13/04/2019

সুজন কৈরী : বন্ড সুবিধার অপব্যবহার করায় সোয়া কোটি টাকার পণ্যসহ ৩টি ক্যাভার্ড ভ্যান জব্দ করেছে ঢাকা কাস্টমস বন্ড কমিশনারেট। এরমধ্যে দুটির মালিক মেসার্স স্কাইবিজ ইমপ্লেক্স লিমিটেড ও খুলনার মুনস্টার পলিমার এবং অপর একটির মালিকানা কেউ দাবি করেনি। কাস্টমস সূত্রে জানা গেছে, বন্ড সুবিধায় আমদানি করা পণ্য চোরাইপথে খোলাবাজারে বিক্রি প্রতিরোধে বিশেষ অভিযানের মধ্যে এসব জব্দ করা হয়। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কাস্টমস বন্ড কমিশনারেটের উপ-কমিশনার মো. মেহেবুব হকের নেতৃত্বে একটি প্রিভেন্টিভ দল ১১ এপ্রিল রাত ১১টার পর রাজধানীর নয়াবাজার মোড় এলাকায় অভিযান চালায়। অভিযানে ডুপ্লেক্স বোর্ড ভর্তি ক্যাভার্ড ভ্যান (ঢাকা মেট্রো ট-২০৫১০২) আটক করা হয়। চালানটি চট্টগাম বন্দর থেকে ঢাকার ডেমরায় লোডিং হয়ে মেসার্স স্কাইবিজ ইমপ্লেক্স লিমিটেডে খালাস হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু অবৈধভাবে খোলাবাজারে বিক্রির উদ্দেশ্যে নয়াবাজারে নেয়া হচ্ছিল। জব্দ পণ্যের মূল্য প্রায় ৪১ লাখ টাকা এবং আদায়যোগ্য শুল্ক-করাদির পরিমাণ প্রায় ১৯ লাখ টাকা।

এদিকে শুক্রবার ভোররাতে সহকারী কমিশনার মো. মনিরুজ্জামানের নেতৃত্বে পৃথক অভিযানে রাজধানীর গুলিস্তান এলাকা থেকে ডুপ্লেক্স বোর্ড ও বিওপিপি বোঝাই ২টি ক্যাভার্ড ভ্যান আটক করা হয়। এসব পণ্য খুলনার মুনস্টার পলিমার এবং অপর একটি মালিকানার দাবীদারহীন প্রতিষ্ঠান থেকে চোরাইপথে খোলাবাজারে বিক্রির উদ্দেশ্যে পুরান ঢাকায় নেয়া হচ্ছিল। জব্দ পণ্যের মোট মূল্য প্রায় ৮৫ লাখ টাকা এবং আদায়যোগ্য শুল্ক-করাদির পরিমাণ প্রায় ৪২ লাখ টাকা।

এই বিষয়ে ঢাকা কাস্টমস বন্ড কমিশনারেটের সহকারী কমিশনার আল আমিন জানান, জব্দ পণ্যের বিপরীতে কাস্টমস আইনে বিভাগীয় মামলা দায়েরসহ প্রতিষ্ঠানগুলোর বন্ডিং কার্যক্রম খতিয়ে দেখা হচ্ছে। বন্ড সুবিধায় আমদানি করা পণ্য চোরাইপথে খোলাবাজারে বিক্রি প্রতিরোধে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]