স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বললেন, নববর্ষে যেকোনো চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় প্রস্তুত আইনশৃঙ্খলা বাহিনী

আমাদের নতুন সময় : 14/04/2019

সুজন কৈরী : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, বাঙালির প্রাণের উৎসব পহেলা বৈশাখে সারাদেশে সার্বজনীন উৎসবে পরিণত হয়েছে। সর্বস্তরের মানুষ এই বাংলা নববর্ষের উৎসবে অংশ নেবেন। সর্বজনীন এই উৎসবকে ঘিরে সারাদেশে নিñিদ্র নিরাপত্তা বলয় তৈরি করা হয়েছে। সেইসঙ্গে যেকোনো চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী প্রস্তুত রয়েছে। গতকাল শনিবার বেলা সাড়ে ১১ টায় রমনা বটমূল ও পার্ক কেন্দ্রিক নিরাপত্তা পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ শেষে সাংবাদিকদের একথা বলেন তিনি। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, যেহেতু পহেলা বৈশাখে রমনা পার্ক ও তার আশপাশ এলাকায় প্রচুর লোকের সমাগম হবে সেজন্য সম্মানিত নগরবাসীর নিরপত্তার স্বার্থে সমগ্র এলাকা সিসি ক্যামেরার নিয়ন্ত্রণে থাকবে। অনুষ্ঠানস্থলে প্রবেশের আগে আর্চওয়ে দিয়ে প্রবেশ করতে হবে। থাকবে পোশাকে ও সাদা পোশাকে পুলিশের নজরদারি। পর্যাপ্ত মেডিকেল টিম ও ফায়ার সার্ভিস ইউনিট মোতায়েন থাকবে।
তিনি বলেন, নিরাপত্তার সঙ্গে পহেলা বৈশাখ উদযাপনে সকল ধরণের প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। পুলিশের সক্ষমতা বৃদ্ধি করা হয়েছে। যেকোনো পরিস্থিতি মোকাবেলায় তারা প্রস্তুত। বাংলা নববর্ষ উদযাপনের গুরুত্বপূর্ণ অংশ মঙ্গল শোভাযাত্রা। মঙ্গল শোভাযাত্রার নিরাপত্তায় নেয়া হয়েছে বিশেষ ব্যবস্থা। নিরাপত্তা বাহিনী সর্বোচ্চ সতর্ক ও প্রস্তুত রয়েছে।
সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, নিরাপত্তার কোনো ঝুঁকি নেই। তারপরও সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় থাকবে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী। বাংলা নববর্ষ আমাদের সংস্কৃতির বড় অংশ। কেউ উস্কানি দিয়ে নাশকতার চেষ্টা করলে, জনগনই তা প্রতিহত করবে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ক্রিমিনালরা নানাভাবে মেধা প্রয়োগ করবেই। তবে সেভাবে নিরাপত্তা বাহিনীকে তৈরি করেছি আমরা। আয়োজন নিয়ে কোনো আশঙ্কা নেই। সারা দেশে নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। কোনো বড় চ্যালেঞ্জ নেই এবার। উৎসব উদযাপনে কোনো ধরনের অসুবিধা হবে না। পুলিশ, র‌্যাবসহ নিরাপত্তা বাহিনী সতর্ক রয়েছে। কেউ নাশকতামূলক পরিস্থিতি তৈরি করতে চাইলে তাদের উদ্দেশ্য সফল হবে না। সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে ছাড়ানো গুজব ও প্রপাগন্ডা প্রতিরোধে প্রস্তুত রয়েছে ডিএমপির সাইবার সিকিউরিটি ইউনিট উল্লেখ করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পহেলা বৈশাখ ঘিরে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কোনো ধরনের উসকানি, গুজব বা প্রোপাগান্ডায় কান না দিতে দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।
এর আগে রমনা পার্কে ডিএমপির সোয়াট, বোম্ব ডিসপোজাল ও ডগ স্কোয়াড ইউনিটের সমন্বয়ে একটি নিরাপত্তা মহড়া অনুষ্ঠিত হয়। সম্পাদনা : আনিস রহমান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]