ভারতের নির্বাচন নিয়ে প্রতিবেশি দেশগুলোর রাষ্ট্রপ্রধানরা যা ভাবছেন

আমাদের নতুন সময় : 29/04/2019

বিশ্বজিৎ দত্ত : ২০১৪ সালে ভারতের বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানে সার্কের রাষ্ট্রপ্রধানদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছিল। শুরু হয়েছিল সৌহার্দপূর্ণ আঞ্চলিক সহযোগিতার নতুন পরিবেশ। ২০১৯ ভারতের আবারো নির্বাচন, এই অবস্থায় ভারতের প্রতিবেশি দেশগুলো নির্বাচন নিয়ে বেশ খোলামেলাই কথা বলছে। সবার আগে ভারতের নির্বাচন নিয়ে কথা বলেছে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে বিদ্যুৎ আমদানির একটি উদ্বোধনি অনুষ্ঠানে শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে আগাম নির্বাচনি শুভেচ্ছা জানান। সম্প্রতি নরেন্দ্র মোদী এক সাক্ষাতকারে বলেছেন, বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী তাকে প্রতিবছরই মিস্টি ও উপহার পাঠান। দুই প্রধানমন্ত্রীর এই কথায় বোঝা যায় ভারতের নির্বাচনে বাংলাদেশের অবস্থান ক্ষমতাসীনদের প্রতিই থাকবে। আর থাক্রাই কথা কারণ নরেন্দ্র মোদীর সরকারের সময়েই বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের সবচেয়ে কূটনৈতিক অর্থনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন হয়েছে। এই সময়ে প্রায় ৯০ টি চুক্তি স্থাপন হয়েছে দুই দেশের মধ্যে। বাংলাদেশে এখন ভারতের ১৫ বিলিয়ন ডলারের উপরে বিনিয়োগ। যা ভারতের বৈদেশিক যেকোন দেশের বিনিয়োগের মধ্যে সর্বোচ্চ। দুইদেশের মধ্যে সামাজিক ও সাংস্কৃতিক যোগাযোগও বৃদ্ধি পেয়েছে। পাকিস্তানের সঙ্গে ভারতের বিশেষ করে মোদী সরকারের যোগাযোগটা ভাল নয়। কাশ্মিরে জঙ্গি হানার ঘটনায় দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধাবস্থার সৃষ্টি হয়েছিল। এ্রমধ্যেই পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ভারতের প্রধানমন্ত্রীর কাছে চিঠি লিখেছেন পাকিস্তান সফরের। আবার ইমরান খান প্রকাশ্যেই বলেছেন, ভারতে এবারো মোদী সরকার ক্ষমতায় আসলে পাক ও ভারতের আলোচনার দুয়ার আরো সম্প্রসারিত হবে। তিনিও নির্বাচনে মোদীর সাফল্যই কামনা করেন। ভারতের আরেক বড় প্রতিবেশি চীন অবশ্য প্রকাশ্যে কিছু বলেনি। কিন্তু তারা ভারতের কমিউনিস্ট দলগুরোকে এবারে আর তেমনভাবে সহায়তা করছে না। তার চেয়ে তারা মোদী সরকারে কাছে ওয়ান বেল্ট কর্মসূচিতে অংশগ্রহনের আহ্বান জানিয়েছে। দ্বিপাক্ষিক সমস্যা বিশেষ করে ডোকলাম ও অরুনাচলের সীমান্ত সমস্যা সমাধোনে মোদী সরকারে সঙ্গে কাজ করতেই আগ্রহ প্রকাশ করেছে। চীনের এই আগ্রহে সহজেই বোঝাযায় চীনও নরেন্দ্র মোদীর সরকারকেই আগামীতে চাচ্ছে। নেপাল ও ভূটান নির্বাচন নিয়ে কোন মন্তব্য করেনি। নেপালে বর্তমানে কমিউনিস্ট জোট সরকার রয়েছে। তাদের বিজেপি সরকারের সঙ্গে নীতিগত অমিল রয়েছে। সেই হিসাবে নেপাল ভারতের নির্বাচন নিয়ে নীরব রয়েছে। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]