বিজিএমইএ সভাপতি রুবানা হক বললেন, ‘পোশাক খাতে যতো বিচ্যুতি, তার চেয়ে অনেক বেশি ইতিবাচক গল্প আছে’

আমাদের নতুন সময় : 11/05/2019

দেবদুলাল মুন্না : বিজিএমইএর প্রথম নারী সভাপতি মোহাম্মদী গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক রুবানা হক।  তিনি সম্মিলিত ফোরাম ফেসবুক পেজে বলেছেন, ‘আমার কাজের জায়গাটি মূলত নারী শ্রমিকপ্রধান খাত। নারী তো মায়ের জাত। আমাদের একটা অহংকার আছে যে আমরা বোধ হয় অন্য দশটা পুরুষের চেয়ে বেশি বুঝি। কারণ, আমাদের অনেক মানিয়ে চলতে হয়। সুতরাং আমার নারী শ্রমিকেরা যখন শুনবেন আমার কথা, আমাকে তারা বুঝতেও পারবেন। আমি মনে করি আমাদের অনেক ভালো কাজ আছে। আমি এসব ভালো গল্পের একটা সেল বা কেন্দ্র করে দেবো। আমাদের অনেকেই অনেক ভালো কাজ করেন। কিন্তু গণমাধ্যমকে প্রবেশাধিকার দিতে চান না, ভয় পান। কি-না-কি লেখে ফেলবে, সেই ভয়। এই জায়গাটা নিয়ে কাজ করতে চাই। যিনি যা ভালো কাজ করছেন, সেটাই যেন প্রচার পায়। কেননা পোশাক খাতে যতো বিচ্যুতি আছে, তার চেয়ে অনেক বেশি ইতিবাচক গল্প আছে। ওই দায়িত্বের জায়গাটা যদি আমি নিয়ে নিই, যদি বলি মিডিয়াকে ঢুকতে দেন, তাহলে কিন্তু গল্পটা বদলে যাবে। পারস্পরিক আস্থার জায়গাটা তৈরি করতে হবে।’

সম্মিলিত ফোরাম হোমপেজে টাইটেল রয়েছে, ‘আমরা দাঁড়ালে হারবে না শিল্প!’ ‘লোকে বলে পোশাক সেলাই, আমরা বলি সভ্যতা বুনি। এই বুনন শুধু পোশাকের নয়, সম্পর্কেরও।’ এই শিল্পের বয়স এখন ৪৪ বছর। দেশের বৃহত্তম রপ্তানি খাত। ৪৪০০টি কারখানা। ১৯৫৫ জন উদ্যোক্তা। প্রায় ৪০ লক্ষাধিক মানুষের কর্মসংস্থান। যার ৮০ শতাংশ নারী। ২ হাজার ৮১২ কোটি ৮৫ লাখ মার্কিন ডলারের বাজার। প্রতিদিন লড়তে হয় ঘরে, বাইরে। এই লড়াই ক্রেতার সাথে দাম বৃদ্ধির, ভাবমূর্তি ও দক্ষতা বৃদ্ধির, সরকারের সাথে নীতি সহায়তার, নিরাপত্তা-শ্রম-পরিবেশ উন্নয়নের, সকল বাধা দূর করে শিল্পকে টেকসই করার। এই শিল্পের ভালো যেমন আমাদের জন্য কল্যাণের তেমনি ক্ষতিও আমাদের সবার।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]