আত্মহত্যার কথা আগেই জানিয়েছিলো রসি ও তার মা

আমাদের নতুন সময় : 21/05/2019

মাসুদ আলম : রাজধানীর উত্তরখানের ময়নারটেক এলাকার একটি বাসায় মা, ছেলে ও মেয়ের মৃত্যুর ঘটনাটি আত্মহত্যা বলে ধারণা করছে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে উদ্ধার করা চিরকুট দুটির  সূত্র ধরেই এগুচ্ছে তারা ।  ঘটনার ১৫দিন আগে নিহত জাহানারা বেগম ও তার ছেলে কাজী মুহিব হাসান রসি আত্মীয় স্বজনদের বলেছিলেন তারা আত্মহত্যা করবেন। গত ১২ মে রাতে উত্তরখানের ওই বাসা থেকে মা জাহানারা বেগম, ছেলে কাজী মুহিব হাসান রসি ও মেয়ে তাসপিয়া সুলতানা মিমের  মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

তদন্ত সংশ্লিষ্ট এক কর্মকর্তা বলেন, মিম মানসিক ভারসাম্যহীন ছিলো। সে এলোমেলো ও খোলামেলা ভাবে চলাফেরা করতো এবং অস্বাভাবিক আচরণ করতো। এজন্য এলাকাবাসীর অভিযোগে জাহানারা বেগম সন্তানদের নিয়ে গ্রামের বাড়িতে চলে যান। সেখানেও একই সমস্যার কারণে তারা আবার ঢাকায় আসেন। মিমকে নিয়ে তার মা ও ভাই হতাশ ছিলেন। এছাড়া জাহানারার স্বামী ইকবালের মৃত্যু পর দুই সন্তানের ভবিষ্যৎ নিয়ে হতাশ ছিলেন তিনি। স্বামীর মৃত্যুর পর তাদের সংসার কষ্টে চলছিলো। পড়াশুনা শেষ করে কোনো চাকরি না পাওয়ায় হতাশাগ্রস্ত হয়ে পড়েন রসি। ছেলের চাকরি না হওয়ায় হতাশ ছিলেন মা জাহানারাও। ঘটনার ১৫ দিন আগে রসি ও তার মা ( রসির মামা  ও চাচাকে) বলেছিলেন তারা আত্মহত্যা করবেন।

জাহানারার দূরসর্ম্পকের ফুফা নাসিরুল আলম নান্টু বলেন, পারিবারিক জীবনে তারা হতাশ ছিলো তা বোঝা যায়নি। রসি ও তার মা তাকে বলেছিলেন উত্তরখানে তাদের যে ৪ কাঠা জমি রয়েছে, সেখানে বাড়ি করে বসবাস করবেন। সেইজন্যই ওই বাসা ভাড়া নেন তারা।

উত্তরখান থানার ওসি হেলাল উদ্দিন বলেন, ময়নাতদন্তকারী চিকিৎসক ও নিহতদের আত্মীয় স্বজনদের সঙ্গে কথা বলে  ধারণা করা হচ্ছে এটি আত্মহত্যা। রুমের দরজা ভেঙ্গে তাদের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছিলো। দরজার ভেতর থেকে সিটকিনিও লাগানো ছিল। কেউ হত্যা করে পালিয়ে যাবে সেই আলামতও পাওয়া যায়নি। রসির ফেসবুক স্ট্যাটাসগুলো ছিল অস্বাভাবিক।

র‌্যাব-১ এর সহকারি পুলিশ সুপার মো.কামরুজ্জামান বলেন, পারিবারিক জীবনে তারা হতাশ ছিল। হতাশা থেকেই আত্মহত্যা করতে পারে। তবে তদন্ত শেষে মূল রহস্য জানা যাবে। সম্পাদনা : কাজী নুসরাত

 

 

 




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]