নাড়ির টানে ৪ সিটি ছাড়ছে কোটি মানুষ, সবচেয়ে চাপ নৌপথে, রেলে ২/৩ ঘন্টা দেরি, মহাসড়কে এবার জ্যাম কম

আমাদের নতুন সময় : 02/06/2019

তাপসী রাবেয়া : প্রতি বছরের ন্যায় এবারও ঈদযাত্রায় ঢাকা, গাজীপুর ও নারায়ণগঞ্জের চার সিটি কর্পোরেশন এলাকাসহ তিন জেলা ছেড়ে যাচ্ছেন এক কোটি ৪৭ লাখ মানুষ। এর মধ্যে ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশন ও জেলার অন্যান্য স্থান থেকে যাবেন এক কোটি ১০ লাখ মানুষ। গাজীপুর থেকে বাড়ি যাবেন ২৫ লাখ ৫০ হাজার মানুষ। ১১ লাখ ৫০ হাজার মানুষ যাবেন নারায়ণগঞ্জ থেকে। বিপুল এ সংখ্যক ঘরমুখী মানুষের ৫৫ শতাংশ সড়কপথে এবং ২৫ শতাংশ নৌপথে যাত্রা করবেন। বাকি ২০ শতাংশ যাবেন রেলপথে। নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির প্রতিবেদন এ পরিসংখ্যান প্রকাশ করেছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে নৌ, সড়ক ও রেলপথ রক্ষা জাতীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আশীষ কুমার দে বলেন, ঈদে স্বজনদের সান্নিধ্যপ্রত্যাশীরা গত কয়েকদিন ধরে বিচ্ছিন্নভাবে ঘরমুখী হতে শুরু করলেও আনুষ্ঠানিক ঈদযাত্রা শুরু হয়েছে ৩১ মে শুক্রবার থেকে। এ যাত্রা চলবে আগামী ৫ জুন বুধবার (সম্ভাব্য ঈদের দিন) দুপুর পর্যন্ত।

গতকাল শনিবার কমলাপুর রেলস্টেশনে আসা যাত্রীরা বলেন, এক রংপুর এক্সপ্রেসের ভোগান্তিই দুইদিন ধরে ভুগছে যাত্রীরা। শনিবার সকাল নয়টায় ছেড়ে যাওয়ার কথা থাকলেও সে ট্রেন স্টেশন ছাড়ে সকাল সাড়ে এগারটার পর। রংপুরের যাত্রী লিপি কাউয়ুম বলেন, মূল রংপুর এক্সপ্রেসের বদলে আরেক টি ট্রেনকে রংপুর এক্সপ্রেস বানানো হয়েছে। এত টাকা আর সময় ব্যয় করে তাহলে খারাপ ট্রেনে করে যেতে হবে বলে মন ক্ষুন্ন হন এই যাত্রী। কমলাপুর স্টেশন ম্যানেজার আমিনুল ইসলাম বলেন, রোববার থেকে আর সংকট থাকবে না।

সদরঘাটে লোকে লোকারণ্য সকাল সাতটা থেকেই। বিআইডব্লিউটিএ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, শনিবার স্বাভাবিকের চেয়ে ১৫ শতাংশ বেশি যাত্রী নৌপথে ঢাকা ছাড়ছেন। সদরঘাটে ঝক্কি এড়াতে ১৫০ লঞ্চ প্রস্তুত রয়েছে বলেও জানান তারা। প্রতিবন্ধী ও বয়স্কদের চলাচলে আলাদা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে এবার সদরঘাটে। শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ব্যাগ-বস্তাসহ পল্টুনে বসে ছিলেন মকবুল হোসেন। তিনি ঢাকায় রাজমিস্ত্রির কাজ করেন, তার বাড়ি বরিশালের বাকেরগঞ্জে। স্ত্রী ও দু’সন্তানসহ গ্রামের বাড়িতে যাবেন। তিনি জানান, সকাল ৯টা থেকে সদরঘাটে এসে পল্টুনে বসে আছেন তিনি। কোনো লঞ্চ এখনও ঘাটে আসেনি। টার্মিনালে ‘কোকো’ লঞ্চের জন্য অপেক্ষা করছিলেন করিম সরদার। তিনি যাবেন বরিশালের হিজলা থানার ধুলখোলা গ্রামে। করিম সরদার গ্রামেই থাকেন, ঢাকায় এসেছিলেন এক আত্মীয়ের কাছ থেকে পাওনা টাকা নিতে। তিনি বলেন, লঞ্চ সন্ধ্যা ৬টায় ছাড়বে। লঞ্চ ঘাটে আসলে জায়গায় রাখার জন্য তাড়াতাড়ি এসেছেন তিনি।

দুপুরের দিকে ঘাটে থাকা ঢাকা-বরিশালগামী সুরভী-৮ লঞ্চে নিয়ে দেখা যায়, ডেক প্রায় যাত্রীতে ভরে গেছে।

কল্যাণপুর, গাবতলী বাস কাউন্টার থেকে ঠিক সময়েই ছেড়েছে বাস। তবে যাত্রীরা আশংকা করছেন রাস্তায় যানযটের। গাবতলী হানিফ বাস কাউন্টারে কথা হয় নওগাঁও রুটের যাত্রী শামীম হাসানের সঙ্গে। তিনি বলেন, এবার যানজট নয়, স্বস্তির যাত্রা হবে বলা  হচ্ছে। কিন্তু মনের মধ্যে এখনও অতীতের ভোগান্তির প্রভাবটা বেশি।

আকাশ পথে এখনও শিডিউল বির্পয়ের কোনো অভিযোগ আসেনি। তবে অতিরিক্ত ভাড়া আর টিকিটির কৃতিম সংকটের কথা জানায় যাত্রীরা। বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের জেনারেল ম্যানেজার মেরাজ শাকিল বলেন, এখনও আমাদের কোনো ফ্লাইট ডিলে হয় নি। আশা করি হবেও না। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]