ইয়েমেনে ৮৩ লাখ শিশু দুর্ভিক্ষের শিকার

আমাদের নতুন সময় : 04/06/2019

দেবদুলাল মুন্না : আজ  বিশ^  আগ্রাসনের শিকার নির্দোষী শিশুদের স্মরণ দিবস। এদিনটি যখন পালিত হচ্ছে তখনও ইয়েমেনে শিশু মারা যাচ্ছে। সহিংসতায় ইয়েমেনে গত ১২ দিনে ৩২ শিশু নিহত হয়েছে। রোববার জাতিসংঘের শিশুবিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফ এ তথ্য জানায়। তাদের প্রতিবেদনে বলা হয়, দেশটির তায়েজ ও সানা নগরীতে এসব হতাহতের ঘটনা ঘটে। নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলেও আশঙ্কা করছে সংস্থাটি। ইউনিসেফ জানায়, নিহতদের মধ্যে বড় একটা অংশ শিশু। শুক্রবার মাবিয়া জেলায় হামলায় নিহতদের মধ্যে সাতজনই শিশু। যাদের বয়স ৪ থেকে ১৪ বছরের মধ্যে। প্রসঙ্গত যুদ্ধ বিধ্বস্ত ইয়েমেন গত কয়েক বছর ধরে দি ইন্টারন্যাশনাল রেসকিউ কমিটির (আইআরসি) করা দুর্যোগপূর্ণ দেশগুলোর তালিকার শীর্ষে রয়েছে।

ইয়েমেনের ব্যাপারে আইআরসির রিপোর্টে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট আব্দে রাব্বি মানসুর হাদির পক্ষে সৌদি ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের নেতৃত্বাধীন বাহিনীর হামলায় দেশটি ধ্বংসের শেষপ্রান্তে পৌঁছে গেছে। ২০১৫ সালে সৌদি জোটের হামলা শুরুর পর থেকে প্রায় দুই কোটি শিশুর স্কুলে যাওয়া বন্ধ হয়ে গেছে। এসব শিশুর অধিকাংশই কেউ শ্রমিক হিসেবে কাজ করছে, কেউ ভিক্ষা করছে। এদিকে ইয়েমেন ৮৩ লাখ শিশু দুর্ভিক্ষের শিকার বলে জানিয়েছে যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিশুদের জন্য আন্তর্জাতিক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ‘সেভ দ্য চিলড্রেন’। তারা সতর্ক করে দিয়ে বলেছে, দেশটিতে আরো ১০ লাখ শিশু দুর্ভিক্ষের ঝুঁকিতে রয়েছে।সেভ দ্য চিলড্রেন জানায়, যুদ্ধের কারণে খাবারের দাম বৃদ্ধি ও ইয়েমেনি মুদ্রার মান কমে যাওয়ায় আরো অনেক পরিবারকে খাদ্য অনিরাপত্তার ঝুঁকিতে ফেলছে।সৌদি আরবের অভিযোগ, আসলে ইরান হুতি বিদ্রোহীদের আড়ালে ইয়েমেনে যুদ্ধ করছে। এরপর সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও আরা সাতটি আরব রাষ্ট্র ইয়েমেনে ক্ষমতাচ্যুত সরকারকে পুনঃপ্রতিষ্ঠার চেষ্টায় হুতিদের বিরুদ্ধে যুদ্ধে লিপ্ত হয়।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]