এবার ঈদের ছুটিতে ৬ লাখ বাংলাদেশি বিদেশে ভ্রমণে যাচ্ছেন

আমাদের নতুন সময় : 04/06/2019

দেবদুলাল মুন্না : ঈদের ছুটিতে পর্যটনকেন্দ্রগুলো উৎসবমুখর হয়ে উঠে। ট্যুর অপারেটর অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (টোয়াব) বলছে, এবারের ঈদের ছুটিতে প্রায় ৬ লাখ বাংলাদেশি বিদেশে ভ্রমণে যাচ্ছেন। সারা বছরে এ সংখ্যা প্রায় ২৫ লাখের মতো। সাধারণত মধ্যবিত্ত থেকে শুরু  করে উচ্চমধ্যবিত্ত ও উচ্চবিত্ত পরিবারগুলো ঈদের ছুটির সময়টা দেশের চাইতে দেশের বাইরে কাটাতেই বেশি পছন্দ করেন। কারণ- বাইরের দেশগুলোতে পর্যটকদের বিনোদনের জন্য যেমন বৈচিত্র্যপূর্ণ  আয়োজন থাকে তেমনি নিরাপদ ভ্রমণের নিশ্চয়তা থাকে।

অথচ বাংলাদেশের পর্যটনকেন্দ্রগুলো তার উল্টো। লালমাটিয়ার আকবর হোসেন স্বপরিবারে ঈদের ছুটিতে যাচ্ছেন মালয়েশিয়া। ঈদের নামাজ পড়বেন সেখানকার মসজিদে। তিনি সরকারি চাকরিজীবি। মনোয়ার পাঠান নামের এক ব্যবসায়ী যাচ্ছেন সিঙ্গাপুর। তিনি বলেন, ‘ঈদও করলাম ঘুরলামও । এজন্য বাইরে যাচ্ছি। দেশে পর্যটন শিল্পগুলোতে উপচে পড়া ভিড় থাকে। তাই ভোগান্তি পোহাতে হয়। এছাড়া অবকাঠামোগত উন্নয়নও এখানে ভালো নয়। তাই বিদেশে যাচ্ছি।’ ভুক্তভোগী পর্যটক মোখলেসুর রহমান  বলেন, তিন পার্বত্য জেলার দর্শনীয় পর্যটনকেন্দ্রগুলো এখনো দুর্গম। যোগাযোগ ব্যবস্থা ভাল নয়। কুয়াকাটায় সূর্যোদয়ের সৈকত দেখার জন্য এখনো কম ভোগান্তি পোহাতে হয় না। রাস্তাঘাটের কিছুটা উন্নতি হলেও সেখানে পর্যাপ্ত থাকা খাওয়ার ব্যবস্থা নেই। নিরাপত্তাব্যবস্থা তো আরও দুর্বল। সে জন্য ব্রিটেন যাচ্ছি।’

এ ব্যাপারে ট্যুরিজম ডেভেলপার্স অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টিডাব) চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জামিউল আহমেদ বলেন, ‘প্রতিবছর ২৫ লাখ মানুষ দেশের বাইরে ভ্রমণ করলেও বিদেশ থেকে দেশে আসে মাত্র এক লাখের কিছু বেশি পর্যটক। আমাদের দর্শনীয় স্থানগুলোকে আরো আকর্ষণীয় করতে পারলে এ সংখ্যা নিঃসন্দেহে বাড়বে। বিশেষ করে আমাদের দেশে পর্যটনকেন্দ্রগুলোতে ‘নাইট লাইভে’র ব্যবস্থা নেই। এটা করতে হবে।’

 

 

 




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]