মন্দকে স্ববশে রাখার উপায় কী?

আমাদের নতুন সময় : 11/06/2019

ড. এমদাদুল হক

ভালো কি মন্দের বিপরীত? ভালো যদি মন্দের বিপরীত হয়, তবে স্বীকার করে নিতে হয় যে মন্দের মধ্যেও ভালো আছে। প্রত্যেক বিপরীত নিজের মধ্যে তার বিপরীতকে ধারণ করে। রাতের বিপরীত দিন, কারণ রাত দিনকে ধারণ করে। দিনের বিপরীত রাত, কারণ দিন রাতকে ধারণ করে। উত্তলের বিপরীত অবতল, কারণ উত্তল অবতলকে ধারণ করে। লোভের বিপরীত নির্লোভ, কারণ নির্লোভ লোভ ধারণ করে। অহঙ্কারের বিপরীত বিনয়, কারণ বিনয় অহঙ্কার ধারণ করে। ভালো যদি মন্দের বিপরীত হয়, তবে ভালোর মধ্যে মন্দ থাকবে এবং মন্দের মধ্যে ভালো থাকবে। মন্দ যদি ভালোকে ধারণ করে, তবে তা মন্দ নয়… ভালোর আধার। ভালো যদি মন্দকে ধারণ করে, তবে তা ভালো নয়… মন্দের আধার। ভালো যদি মন্দের বিপরীত হয়, তবে ভালোর যে মূল্য, মন্দেরই সেই মূল্য। যেহেতু মন্দ না থাকলে ভালোর মূল্য নেই। পরাজিত না থাকলে যদি জয়ী না থাকে, তবে পরাজিত ও জয়ী উভয়ে সমান কৃতিত্বের দাবিদার, যেহেতু একজনের অস্তিত্ব আরেকজনের উপর নির্ভরশীল।
ঈশ্বর লালন-পালন, যতœ-প্রযতেœর বেলায় ভালো-মন্দের বিচার করেন না। তাহলে ভালোর জন্য পুরস্কার ও মন্দের জন্য শাস্তি নির্ধারিত করলেন কেন? ভালো থাকার জন্য যদি মন্দ থাকা আবশ্যক হয়, তবে ভালো-মন্দ উভয়ের জন্য সমান পুরস্কার থাকাই ন্যায় নয় কি? সুতরাং সিদ্ধান্ত স্পষ্ট। ভালো-মন্দ অবশ্যই আপেক্ষিক নয় এবং অবশ্যই ভালো মন্দের বিপরীত নয়। অস্তিত্ব অনস্তিত্বের বিপরীত নয়। যা আছে তা আছে। যা নেই তা নেই। আছে, নেই এর বিপরীত নয়। সুন্দর কুৎসিতের বিপরীত নয়। সত্য মিথ্যার বিপরীত নয়। ভালো থাকার জন্য মন্দ থাকা আবশ্যক নয়। সুন্দর থাকার জন্য কুৎসিত থাকা আবশ্যক নয়। দুধ থাকার জন্য ভেজাল দুধ থাকা আবশ্যক নয়। তবে হ্যাঁ খাঁটি দুধ থাকার জন্য ভেজাল দুধ থাকা আবশ্যক।
ওমর আগে এই পক্ষের লোক মারতো। এখন ওই পক্ষের লোক মারে। মারামারি তো তার ঠিকই আছে, তাহলে ওমর ভালো হলো কি করে? সে পক্ষ বদল করেছে মাত্র। পক্ষ বদল করলেই মন্দ ভালো হয় না, আর ভালো মন্দ হয় না। সুতরাং ভালো মন্দের অংশ নয়… মন্দও নয় ভালোর অংশ। ভালো প্রকৃতি থেকে স্বয়ং উৎপন্ন। ভালো সয়ম্ভু। ভালো শিক্ষা দেয়া যায় না। ভালো অনুশীলন করা যায় না। ভালো আত্মার প্রকৃতি। সুতরাং আত্মোপলব্ধি হলেই হলো। মন্দের বিপরীতে যে ভালো তা আদতে ভালো নয়। প্রেম যদি ঘৃণার বিপরীত হয় তবে তা প্রেম নয়। শান্তি যদি সন্ত্রাসের বিপরীত হয়, তবে তা শান্তি নয়… সন্ত্রাসেরই আরেকটি স্তর। সন্ত্রাস ছিলো কেন? সুখের জন্য। এখন সন্ত্রাসে আর সুখ পাওয়া যাচ্ছে না, তাই শান্তি চাওয়া। ‘চাওয়া’ সন্ত্রাসেও আছে, শান্তিতে আছে। বৈপরীত্যের দ্ব›েদ্বর মধ্যেই রয়েছে দ্ব›েদ্বর ক‚টাভাস। দ্ব›েদ্বর এই চরিত্রটি উপলব্ধি করতে পারলেই দ্ব›দ্ব থেকে মুক্তি।ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]