• প্রচ্ছদ » » মোহাম্মদ মুরসির পরাজয় ব্রাদারহুড ও ব্রাদারহুড সমব্যথীদের জন্য বড় ঘটনা


মোহাম্মদ মুরসির পরাজয় ব্রাদারহুড ও ব্রাদারহুড সমব্যথীদের জন্য বড় ঘটনা

আমাদের নতুন সময় : 19/06/2019

মাহবুব মোর্শেদ

ইসলামপন্থী সশস্ত্র রাজনীতি মুসলিমদেশগুলোতে মোটামুটিভাবে ব্যর্থ হয়েছে বলা যায়। কারণ এটা দ্রুত আন্তর্জাতিক ইস্যু হয়ে ওঠে। পরাশক্তিগুলো ইচ্ছায় বা অনিচ্ছায় এদের দমন করতে বাধ্য হয়। পলিটিক্যাল ইসলাম ও মুসলিম ব্রাদারহুডও মোটামুটি ব্যর্থ। ক্ষমতার বাইরে থাকলে তারা ভাল সমর্থন পায়। কিন্তু ক্ষমতায় যাবার পর তাদের সংস্কার কর্মসূচি মিডল ক্লাস পছন্দ করে না। রাজনীতির নতুন মেরুকরণের আশঙ্কায় পরাশক্তিগুলো মনে করে এর চেয়ে বরং পুরাতন সামরিক শাসকরা বেশি নিরাপদ। মোল্লাতান্ত্রিক ইসলাম বরং বেশি পোক্ত। অজনপ্রিয় হলেও একটা আমলাতন্ত্র এটাকে টিকিয়ে রাখে।
ভেতরে ধর্মীয় আমলাতন্ত্র বাইরে সাম্রাজ্যবাদীদের সমর্থন মিলে এই মডেলই দীর্ঘস্থায়ী হচ্ছে। রাজতন্ত্র ও সামরিকতন্ত্র দীর্ঘায়ু পায়। কিন্তু ইসলামপন্থী তরুণরা এটা আর পছন্দ করছেন না। এই তিনের বাইরে ইসলামপন্থী রাজনীতি আপাতত আর বড় প্রভাব তৈরি করতে পারছে না। রেদোয়ান ব্রাদারহুড হলেও মোটামুটিভাবে পশ্চিমাদের আস্থাভাজন। ন্যাটোপন্থী। আধা ইওরোপ বলে গণতন্ত্র সেখানে প্রাসঙ্গিক। রাজনীতির বিকল্প সামরিক শক্তিকে দমন করে শক্তিসঞ্চয় করতে পেরেছেন। কিন্তু এই মডেল সবার জন্য সফল হবে তা বলা যায় না। মোহাম্মদ মুরসির পরাজয় ব্রাদারহুড ও ব্রাদারহুড সমব্যথীদের জন্য বড় ঘটনা। তাদের প্রতিক্রিয়া বলে দেয় এ অন্যায়ের বিচারের ভার তারা আল্লাহর ওপর ছেড়ে দিয়েছে। দুনিয়ায় এ রাজনীতি আর টিকবে বলে মনে হচ্ছে না। যদি নতুন কোনো মডেল না আসে। ইসলামপন্থী রাজনীতির ভবিষ্যত নাই বললেই চলে। ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]