১৬ দফা দাবিতে  বুয়েট শিক্ষার্থীদের আন্দোলন অব্যাহত

আমাদের নতুন সময় : 20/06/2019

আসিফ হাসান কাজল : গতকাল ৫ম দিনের মতো বৃক্ষ নিধন বন্ধ, নিয়মিত শিক্ষক মূল্যায়ন, নতুন ছাত্রকল্যাণ দপ্তরের পরিচালককে অপসারণ, গবেষণায় বরাদ্দ বাড়ানোসহসহ ১৬ দফা দাবিতে আন্দোলন করেছে বুয়েটের শিক্ষার্থীদের আন্দোলন অব্যাহত রয়েছে। আন্দোলনের প্রধান সংগঠক সনজীব হাবিব দীপ্ত বলেন, আজ(গতকাল) ৫ম দিন পেরিয়ে গেলেও ভিসি স্যারের সাক্ষাৎ আমরা পাইনি। এই ঘটনায় আজও বুয়েটে কোন ক্লাশ হয়নি।

ক্লাস-পরীক্ষা বাদ দিয়ে বুধবার সকাল ১১টার দিকে বুয়েটের শহীদ মিনারের পাদদেশে অবস্থান নেন শিক্ষার্থীরা। পরে শহীদ মিনারের পাশেই ক্যাম্পাসের ভেতরের পলাশী-বকশী বাজার রাস্তা অবরোধ করেন তারা। সাড়ে ১১টার দিকে প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝলিয়ে দেন শিক্ষার্থীরা। দুপুর আড়াইটায় দিনের কর্মসূচি স্থগিত করেন তারা।

আন্দোলন ও গাছকাটার কারণ খুঁজতে বুধবার বুয়েট ক্যাম্পাসে সরেজমিনে একাধিক শিক্ষার্থী ও কর্মচারীর সাথে কথা হয়। নিরাপত্তা প্রহরী গাউসুল আজম বলেন, ভিসি স্যারের বাংলোর ভিতর ও বাইরের কিছু গাছ কাটা হয়েছে। কারণ সম্পর্কে জানান, স্যারের বাংলোতে আলো বাতাস প্রবেশ না করায় এইসব ঝুঁকিপূর্ণ গাছ কাটা হয়েছে।

শিক্ষার্থীরা জানায়, গাছ কাটা প্রসঙ্গে ইলেকট্রিক এন্ড ইলেকট্রনিক্স বিভাগের ডীন ড. মোঃ সাইফুর রহমান আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উদ্দ্যেশে বলেছেন, বুয়েট ক্যাম্পাসের গাছগুলোতে অসংখ্য পাখি বসে। এই পাখিগুলোর মল আমাদের গাড়ীর উপর পড়ে গাড়ী নষ্ট হয়। অসংখ্য পাখি থাকায় ক্যাম্পাসের পরিবেশ নষ্ট হচ্ছে। এই কারণেই গাছ কাটা হয়েছে। বক্তব্য প্রসঙ্গে বুয়েটের ড. আব্দুল মুক্তাদির বলেন, এই ধরণের বক্তব্য দেয়া তার ঠিক হয়নি। এই ঘটনায় বুয়েটের ভিসি সাইফুর রহমানের সাথে একাধিকবার মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও সম্ভব হয়নি।

জলবায়ু ও পরিবেশবিদ ড. আইনুন নিশাত বলেন, বুয়েট কর্তৃপক্ষ গাছ কেটেছেন ছাত্ররা আন্দোলন করছে। যে বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিবেশ বিজ্ঞান পড়ানো হয় সেই বিশ্ববিদ্যালয়ে এমন ঘটনা দুঃখজনক। সম্পাদনা : ইকবাল খান

 

 

 




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]