• প্রচ্ছদ » » সাহসী নেতা শেখ হাসিনা এবং ভয়-ডরহীন বাংলাদেশ আকাক্সক্ষা


সাহসী নেতা শেখ হাসিনা এবং ভয়-ডরহীন বাংলাদেশ আকাক্সক্ষা

আমাদের নতুন সময় : 04/07/2019

রবিউল আলম

আমি রাজনীতি করি, কেন করি, কার জন্য করি? প্রশ্নগুলোর উদয় হয় যখন দেখি আমাদের এই সোনার দেশটাকে হায়েনারা ছিন্নভিন্ন করতে চাইছে। বোমা হামলা হয়, বিশ্বজিৎদের প্রাণ দিতে হয়, মেয়রের সন্তান কর্তৃক তরুণীকে শ্লীলতাহানি হতে হয়, রিফাতকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়, কিছু সমাজবিরোধী মানুষ মিন্নিকে চরিত্রহীন বানানোর জন্য ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়, শাহিনের মতো একজন বাচ্চাকে রিকশা ভ্যানের জন্য আঘাতের পর আঘাত করা হয়। আমরা কোথায় যাচ্ছি? প্রশ্ন জাগে নিজের মনে, এজন্য কি আমরা রাজনীতি করছি? রাজনীতি করেছিলাম মুক্ত আকাশে উড়বো, মুক্ত আকাশে ভাসবো, মুক্ত মনের আনন্দে এই পৃথিবী ভরিয়ে দেবো। চিৎকার করে বলবো, এই পৃথিবী দেখো, আমরা বাঙালি স্বাধীনচেতা মানুষ, আমরা আমাদের মাটি পরাধীনতার হাত থেকে মুক্ত করেছি, ভাষার জন্য জীবন দিতে পারি, বাঙালি জাতির ঐক্য বিশ্বকে দেখাতে পেরেছি। যেখানেই বাঙালির পদচারণা হয়েছে, ইতিহাস সেখানেই সৃষ্টি হয়েছে। সুনীল বোস, সুর্যসেন, রবীন্দ্রনাথ, নজরুল, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমানরা বাঙালি। আমরা গর্বিত, গর্ব অনুভব করি পরিচয় দিতে।
বাঙালির পরিচয়ে কোনো অপরাধীর তালিকায় দেখলে আমার কষ্ট হয়। গর্বিতও হই যখন দেখি শেখ হাসিনার মতো সাহসী বাঙালি, বাঙালি জাতির ও বাংলাদেশের দায়িত্বভার নিয়েছেন এবং যথাযথভাবে পালন করার চেষ্টা করছেন। সফলতা আর ব্যর্থতা নিয়ে আলোচনা করার সামর্থ্য আমার নেই, যেহেতু আমি তার দলের রাজনীতি করি। বিচারের ভার এদেশের জনতার উপর ন্যস্ত থাকলো। তবে আমি গর্বিত এই ভেবে যে, আমি শেখ হাসিনার দলের রাজনীতি করি। উত্তর খুঁজে পেয়েছি মা শব্দের অর্থ। মমতার বাঁধনে শেখ হাসিনা যখন ভ্যানচালক শাহিনকে বেঁধে নিয়েছেন, চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছেন, অপরাধীদের আইনের আওতায় আনার জন্য নির্দেশ দিয়েছেন। রাত জেগে ছাত্রলীগের নেতারা শাহিনকে চিকিৎসার প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা করেছেন। আমি আজ চিৎকার করে বলতেই পারি শেখ হাসিনার সরকার এই বাংলায় বারবার দরকার। বুক ফুলিয়ে রাজনীতি করতেই পারি, দেশের মানুষের কাছে ভোট চাইতেই পারি, তবে কিছু অপবাদ যে, নেই আমি তা বলছি না। তবে তারেক জিয়া, খালেদা জিয়ার অপরাধের কাছে কি ? মুজিব আদর্শ বুকে ধারণকারীরা অপরাধ করতে পারে না। অনেক বড় দল আওয়ামী লীগ, যেদিকেই তাকাই আওয়ামী লীগ ছাড়া কিছুই দেখি না, অপরাধী আসবে কোত্থেকে। ভ্যানচালক শাহিনকে ঢাকায় আনা, চিকিৎসার ব্যবস্থাকারীরাও ছাত্রলীগ, আবার বিশ্বজিৎকে হত্যার দায়ভারও ছাত্রলীগের উপর… প্রচারের ব্যবধান অনেক। তবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মমতার কোনো ব্যবধান নেই। মায়ের দায়িত্ব কি, পালন করে কীভাবে জানি না। মায়ের কাছে গেলে, মা কাছে এলে হৃদয়ের মাঝে যে অনুভ‚তি অনুভব করি… শেখ হাসিনার কথা শুনলে, তার মমতায় এদেশের মানুষগুলোকে জড়াতে দেখলে, দেশ নিয়ে ভাবনার কথা শুনলে, সভার মাঝে অনেক ¯েøাগান থামাতে যখন মুখের সামনে আঙ্গুল এনে চুপ করতে বলেন শাসনের সুরে, তখন আমার মায়ের কথাই মনে পড়ে। আমরা চুপ হয়ে গেলে মিটিমিটি হাসেন, দেখতে কি যে মধুর লাগে, পাঠক বোঝাতে পারবো না। সাজেদা চৌধুরী, ওবায়দুল কাদের, মমতাজ উদ্দিন স্যারের বক্তৃতার সময় নিজ হাতে মাইক ঠিক করেছেন অসুস্থ বলে, তা দেখে আমার কি যে ভালো লেগেছিলো, মায়ের কাজ তো এ রকমই হয়। মা শব্দের অর্থ বোঝানোর ক্ষমতা আমার নেই, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছে তো, দেখে শিখে নিও ভাই। লেখক : মহাসচিব, বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতি




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]