যুক্তরাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবসে ওয়াশিংটনের রাস্তায় ‘ঐতিহাসিক’ সামরিক প্যারেড

আমাদের নতুন সময় : 06/07/2019

Mandatory Credit: Photo by ERIK S LESSER/EPA-EFE/Shutterstock (10327819v)
A US Marine Corps unit participates in ‘America’s Independence Day Parade’ along Constitution Avenue during US Independence Day celebrations in Washington, DC, USA, 04 July 2019. The ‘Salute to America’ Fourth of July activities include remarks by US President Donald J. Trump, a parade, military flyovers and fireworks.
Fourth of July Salute to America celebrations in Washington, DC, USA – 04 Jul 2019

আসিফুজ্জামান পৃথিল : অবশেষে নিজের ইচ্ছা পূরণ করলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ৪ জুলাই যুক্তরাষ্ট্রে স্বাধীনতা দিবসে ইউরোপ এবং এশিয়ান স্টাইলে ওয়াশিংটনের রাস্তায় অনুষ্ঠিত হলো সামরিক প্যারেড। প্রচ- বৃষ্টি আর ঠান্ডা উপেক্ষা করে ট্রাম্প নিজে সামরিক সালাম গ্রহণ করে যুক্তরাষ্ট্রকে পাল্টা স্যালুট জানান। ডেইলি মেইল, বিবিসি, সিএনএন।
‘স্যালুট টু আমেরিকা’ নামের এই প্যারেডে ট্রাম্প বলেন, আজ এই বিশেষ অনুষ্ঠানে আমরা পুরো জাতি একত্রিত হয়েছি।’ এবারের এই প্যারেডে যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসের সর্বোচ্চ সামরিক উপস্থিতি ছিলো। এমনকি বৈপ্লবিক যুদ্ধ ও গৃহযুদ্ধের সময়ও কখনই এমনটা হয়নি। এই অনুষ্ঠানে ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রের স্বাধীনতা যুদ্ধ, নারী সমঅধিকার আন্দোলন, নাগরিক অধিকার আন্দোলনসহ বিভিন্ন সংগ্রামে প্রান দেওয়া সামরিক ও বেসামরিক নাগরিকদের শ্রদ্ধা জানান। তিনি নিজের ভাষণে এই প্রত্যেকটি ঘটনার বিস্তারিত বিবরণ প্রকাশ করেন। ট্রাম্প বলেন, ‘আমরা আমাদের ইতিহাস, আমাদের জনগন আমাদের বীরদের ত্যাগকে স্বরণ করছি। তাদের সাফল্যকে উদযাপন করছি। আমরা এতাদিন গর্বের সঙ্গে আমাদের পতাকাকে এতোদিন রক্ষা করে এসেছি। আমাদের মার্কিন সেনাবাহিনীতে নারী পুরুষ উভয়েই আছে। সেনাবাহিনী, বিমান বাহিনী, নৌবাহিনী, কোস্টগার্ড মেরিনের পর শীঘ্রই স্পেশাল ফোর্সেও নারী সদস্য নিয়োগ দেয়া হবে।
একইসঙ্গে ট্রাম্প মঙ্গলগ্রহে যুক্তরাষ্ট্রের পতাকা উড়ানোরও প্রতিশ্রুতি দেন। এই বিষয়ে ট্রাম্প বলেন, ‘আমি আপনাদের জানিয়ে রাখি, আমরা আবারও চাঁদে যাচ্ছি। এবং শীঘ্রই আমরা মঙ্গলে মার্কিন পতাকা পুঁতবো।’ অবশ্য এর আগে নাসার নতুন চন্দ্রাভিযানের বিরোধিতা করেছিলেন ট্রাম্প। ট্রাম্পের বক্তব্যের পরই সামরিক সালাম দিতে সেনা নৌ ও বিমানবাহিনীর আকাশযানগুলো লিঙ্কন মেমোরিয়ালের উপর দিয়ে উড়ে যায়। এসব আকাশযানের মধ্যে ছিলো বি-৫২ বম্বার, এফ-১৮ হরনেট, এফ-৩৫ লাইটনিং-২ এবং অসপ্রে হেলিকপ্টার। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]