• প্রচ্ছদ » শেষ পাতা » রুহিন হোসেন প্রিন্স বললেন, গ্যাসের সদ্ব্যবহার নিশ্চিত করার জন্য পুরানো যন্ত্রপাতি পাল্টাতে হবে


রুহিন হোসেন প্রিন্স বললেন, গ্যাসের সদ্ব্যবহার নিশ্চিত করার জন্য পুরানো যন্ত্রপাতি পাল্টাতে হবে

আমাদের নতুন সময় : 08/07/2019

আমিরুল ইসলাম : গ্যাসের দাম বৃদ্ধি নিয়ে নানা দিক থেকে সমালোচনা সত্তে¡ও সরকার গ্যাসের দাম বাড়িয়েছে। জ্বালানি খাতে আমদানি নির্ভরতা বৃদ্ধি পাওয়ায় বারবার গ্যাসের দাম বাড়ানো হচ্ছে এবং এর ফলে জনগণের উপর বোঝা সৃষ্টি হচ্ছে। জনগণের উপর বোঝা কমানো এবং জ্বালানি খাতের টেকসই উন্নয়ন করার জন্য কি ধরনের পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন জানতে চাইলে বাংলাদেশের কমিনিউস্ট পার্টির (সিপিবি) সম্পাদক রুহিন হোসেন প্রিন্স বলেছেন, গ্যাসের সদ্ব্যবহার নিশ্চিত করার জন্য পুরানো মেশিনারিজ (যন্ত্রপাতি) পাল্টাতে হবে।
তিনি বলেন, সরকার লুটপাট বন্ধ করলে, দুর্নীতি বন্ধ করলে গ্যাসের দাম কমে যাবে। আমাদের দেশের গ্যাস, উত্তালবাড়িয়ার সমুদ্র তলদেশের গ্যাস উত্তোলন করলে বিদেশে থেকে এলএনজি আমাদানি করতে হবে না। গ্যাসের দাম বাড়াতে হবে না। কিন্তু বর্তমান শাসকগোষ্ঠী এবং অতীতে যারা ক্ষমতায় ছিলো তারা জনগণের স্বার্থের সরকার নয়। তারা জনস্বার্থে কাজ না করে লুটপাটকারীদের স্বার্থ রক্ষা করার জন্য কাজ করে। এ কারণে তারা বারবার গ্যাসের দাম বাড়ায়। জনগণ এখন কি করবে? তাদেরই সিদ্ধান্ত নিতে হবে। জনগণ যদি এটা মেনে নেন, তারা যদি প্রতিবাদী না হন তাহলে তাদের স্বার্থ উদ্ধার করা সম্ভব হবে না। জনগণকে তাদের স্বার্থ রক্ষার জন্য প্রতিবাদ করতে হবে। বামপন্থীরা প্রতিবাদ করছে। আমরা হরতাল পালন করেছি। আগামীতে জ্বালানি মন্ত্রণালয় ঘেরাও করবো এবং আমাদের লাগাতার আন্দোলন চলবে। এসব আন্দোলনে জনগণকে শরিক হওয়ার আহŸান জানাচ্ছি। হাজার হাজার জনগণ গ্যাসের দাম কমানোর দাবিতে রাস্তায় নেমে আসলে সরকার বাধ্য হবে গ্যাসের দাম কমাতে। এটাই আমরা মনে করি। জনগণের নিষ্ক্রিয়তা অনেক সময় সরকারের লুটপাটকে সহায়তা করে। সুতরাং গ্যাসের দাম কমানো নির্ভর করছে জনগণের উপরে। শাসকদের কাবু করতে গেলে জনতার শক্তি লাগবে।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]