শুভ জন্মদিন সৌরভ গাঙ্গুলি

আমাদের নতুন সময় : 08/07/2019

বাবলু ভট্টাচার্য

সারা পৃথিবীতে তিনি ‘মহারাজ’ নামেই পরিচিত বেশি। ক্রিকেট মাঠের এই নক্ষত্র সৌরভ গাঙ্গুলি। বাবার নাম চন্ডীদাস গাঙ্গুলি এবং মায়ের নাম নিরুপা গাঙ্গুলি। শৈশব থেকেই আরাম এবং স্বাচ্ছন্দ্যের মধ্যে দিয়ে মানুষ হয়েছেন সৌরভ। ছেলেবেলায় তার বাবা-মা চাননি তিনি খেলাধূলার জগতের সঙ্গে যুক্ত হন। বরং তারা চেয়েছেন সৌরভ যেন তার পড়াশোনায় বেশি মনোযোগী হন। কিন্তু সৌরভের দাদা স্নেহাশিষ গাঙ্গুলি যেহেতু একজন প্রতিশ্রæতমান বাঁ-হাতি ক্রিকেটার ছিলেন, তাই তিনিই ছিলেন সৌরভের অনুপ্রেরণা। তাকে অনুসরণ করেই সৌরভ খেলতে শুরু করেন এবং বাঁহাতে ব্যাট এবং ডান হাতে বল করা শুরু করেন। সৌরভ কাউন্টি খেলতে ইংল্যান্ড যান। সেখানে তিনি ‘গø্যামরগান’-এর হয়ে খেলতে থাকেন।
প্রথম ভারতের জাতীয় দলের হয়ে খেলার সুযোগ আসে ১৯৯৬ সালে। ২০০০ সালে তিনি ভারতের অধিনায়ক হন। এরপর তিনি কখনো সাফল্যের শিখরে পৌঁছেছেন আবার কখনো বা ব্যর্থতার খাদে নেমেছেন। তবে, ১৯৯৬ সালের ২০ জুন লর্ডসের মাঠেই তার প্রথম অভিষেক ঘটে। তিনি ভারতের দ্বিতীয় সফলতম অধিনায়ক। তার হাত ধরেই বিশ্ব ক্রিকেটে ভারতের জাতীয় ক্রিকেট দল পরিচিত হয় অন্যরূপে। তার নেতৃত্বে ভারত অনেক টুর্নামেন্ট, সিরিজ দেশে-বিদেশে জিতেছে।
শুধু একজন সফল অধিনায়কই তিনি নন, তিনি একজন সফল ক্রিকেটারও। বিশ্বের ক্রিকেটারদের মধ্যে তিনি চতুর্থ খেলয়াড় যিনি একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটার ১১,০০০ এর বেশী রান করেছেন। তিনি তার টেস্ট জীবনে ১৬টি এবং একদিনের ম্যাচে ২২টি শতরান করেছেন। ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ছাড়া তার টেস্ট খেলিয়ে সব দেশগুলোর সাথে শতরান আছে। তৎকালীন ভারতীয় কোচ গ্রেগ চ্যাপেল এবং তদানীন্তন নির্বাচন কমিটির সাথে মতের মিল না হওয়ায় তাকে অন্যায়ভাবে জাতীয় দল থেকে সরিয়ে দেওয়া হয়। তীব্র মানসিক জোর, পরিশ্রম দিয়ে তিনি আবার জাতীয় দলে জায়গা করেন।
তিনি তার শেষ টেস্ট ম্যাচটি খেলেন অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ৬ নভেম্বর ২০০৮-এ। শেষ একদিনের আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেন পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ১৫ নভেম্বর ২০০৭ সালে। তিনি কোন আন্তর্জাতিক কুড়ি ওভারের ম্যাচ খেলেন নি। তবে আই পি এল-এ এখনো পর্যন্ত ৬৩ ম্যাচে ৫৯ ইনিংস খেলে তার রান ১৪৬১। গড় ২৬.৫৬ এবং স্ট্রাইক রেট ১০৮.৩৮। বল হাতেও তিনি ৬৬১ রান দিয়ে ২৭টি উইকেট নিয়েছেন। সর্বোচ্চ রান ৯১ এবং সেরা বোলিং ২৭ রানে ৩ উইকেট। তার অসাধারণ কৃতিত্বের স্বীকৃতিস্বরূপ ২০০৪ সালে ‘পদ্মশ্রী’ সম্মানে ভূষিত হন। বর্তমানে সৌরভ গাঙ্গুলি ক্রিকেট মাঠের পাশাপাশি ক্রিকেটের প্রশাসন এবং ধারাভাষ্যকার হিসাবে কাজ করছেন।সৌরভ গাঙ্গুলী ১৯৭২ সালের ৮ জুলাই কলকাতার বেহালায় জন্মগ্রহণ করেন।
লেখক : চলচ্চিত্র গবেষক ও সাংস্কৃতিক কর্মী




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]