পেরুকে হারিয়ে কোপার শিরোপা জয় ব্রাজিলের, ১২ বছর অপেক্ষার অবসান

আমাদের নতুন সময় : 09/07/2019

আক্তারুজ্জামান : সেই ২০০৭ সালে সর্বশেষ নিজ মহাদেশের প্রতিযোগীতা কোপা আমেরিকার শিরোপা জিতেছিলো ব্রাজিল। এরপর তিনবার আসর মাঠে গড়ালেও খালি হাতে ফিরতে হয়েছিলো নীল-হলুদ বাহিনীর। কিন্তু এবার ঘরের মাঠে আর দর্শকদের শিরোপা উৎসব থেকে বঞ্চিত করেননি জেসুস-ফিরমিনোরা। মারকানার প্রায় ৮০ হাজার দর্শকের সামনে ফাইনালে পেরুকে ৩-১ গোলে হারিয়ে ১২ বছর অপেক্ষার অবসান ঘটিয়েছে সেলেকাওরা। এ নিয়ে গত ৯ আসরে ৫ বারই চ্যাম্পিয়ন হলো ব্রাজিল।

রোববার রাতে ৭০ মিনিটের মাথায় গ্যাব্রিয়েল জেসুস দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখে মাঠ ছাড়ার পর ১০ জনের ব্রাজিলকে কিছুটা চেপে ধরে পেরু, তবে দ্বিতীয় গোলের দেখা পায়নি। ম্যাচের ৮৬ মিনিটে সবচেয়ে বড় ভুলটি করে বসে পেরু। এভারটসকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেন পেরুর জামব্রানো। ভারের সাহায্য নেন রেফারি, যাতে সিদ্ধান্ত মেলে পেনাল্টির। আর সে পেনাল্টি থেকে গোল করেন রিচার্লিসন (৩-১)। শেষপর্যন্ত ওই ব্যবধানে জিতেই ১২ বছরের আক্ষেপ ঘুচায় ব্রাজিল।

এরআগে, ২-১ গোলে এগিয়ে থেকে প্রথমার্ধ শেষ করে স্বাগতিক ব্রাজিল। ১৫ মিনিটে জেসুসের ক্রস থেকে বল পেয়ে ডান পায়ের ছোঁয়ায় দারুণ এক গোল করেন এভারটন। প্রথমার্ধের শেষ দিকে ৪৪ মিনিটের মাথায় ভুল করে বসে ব্রাজিল। নিজেদের বক্সের মধ্যে থিয়াগো সিলভার হাতে বল লেগে যায়। এতে পেনাল্টি পায় পেরু। গুইরেরোর নেয়া পেনাল্টি কিক অ্যালিসন বেকার বুঝতেই পারেননি (১-১)।

কিন্তু পেরুর সেই আনন্দ স্থায়ী হয় কিছুক্ষণ। প্রথমার্ধের অতিরিক্ত সময়ের তিন মিনিটের মাথায় পেরুর রক্ষণের ভুলেই বল পেয়ে যান আর্থার। সেটা আলতো টোকায় তিনি দিয়ে দেন বক্সের মধ্যে দৌড়ে যাওয়া জেসুসকে। জেসুসও চোখের পলকে সেটা জড়িয়ে দেন জালে (২-১)। রিচার্লিসন তিন গোল করে সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার পান। আর পুরো টুর্নামেন্টে দারুণ খেলা দানি আলভেস পান গোল্ডেন বল। সেরা গোলরক্ষক ছিলেন ব্রাজিলের অ্যালিসন বেকার। সম্পাদনা : মোহাম্মদ রকিব

 

 




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]