• প্রচ্ছদ » » কলকাতার নায়িকা প্রিয়াঙ্কা সরকারের অতিরিক্ত পারিশ্রমিক ‘হৃদয়জুড়ে’ নিয়ে অনিশ্চয়তায় পরিচালক রফিক শিকদার


কলকাতার নায়িকা প্রিয়াঙ্কা সরকারের অতিরিক্ত পারিশ্রমিক ‘হৃদয়জুড়ে’ নিয়ে অনিশ্চয়তায় পরিচালক রফিক শিকদার

আমাদের নতুন সময় : 20/07/2019

ইমরুল শাহেদ : যতোটা অনিশ্চিত ভাবা হচ্ছে, ঠিক ততোটা নয়। পরিচালক রফিক শিকদার ডাবিংয়ের কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন এফডিসিতে। সেখানেই দেখা হলো নিরবের সঙ্গে। আব্বাস ছবির সাফল্যে তিনি বেশ ফুরফুরে মেজাজে আছেন। সমস্যা ছবির নায়িকা কলকাতার প্রিয়াঙ্কা সরকার কিছুতেই তাকে সহযোগিতা করছেন না। একের পর এক তিনি বায়না ধরছেন। এবার তিনি ডাবিংয়ের জন্য অতিরিক্ত পারিশ্রমিক দাবি করে ডাবিং থেকে বিরত রয়েছেন। তাতে কী পরিচালক বসে থাকবেন? সব কাজেরই বিকল্প আছে। পরিচালক রফিক শিকদারও হয়তো বিকল্প পথেই হাঁটবেন। এমনটাই আভাস পাওয়া গেছে ইউনিট সূত্রে।
প্রিয়াংকা সরকারের সঙ্গে রফিক শিকদারের প্রথম জটিলতা তৈরি হয় বিয়ের প্রস্তাবকে কেন্দ্র করে। সেসময় প্রিয়াঙ্কা পরিচালকের বিরুদ্ধে অপেশাদার আচরণের অভিযোগ তুলে চলচ্চিত্রে অভিনয়ের অস্বীকৃতি জানান। ঘটনার বছরখানেক পর ৮ মাস আগে প্রিয়াঙ্কার দেয়া শর্তানুসারে কলকাতায় পরিচালককে ছাড়াই ছবিটির বাকি অংশের দৃশ্যধারণ সম্পন্ন করতে হয়েছে। এর জন্য নায়িকাকে নির্ধারিত পারিশ্রমিকের বাইরে অতিরিক্ত পারিশ্রমিক দিতে হয়েছে বলে দাবি করেন পরিচালক। শুটিংয়ের পর ডাবিংয়েও তিনি অতিরিক্ত পারিশ্রমিক দাবি করছেন জানিয়ে রফিক বলেন, ‘এবার ডাবিংয়ের জন্য অতিরিক্ত পারিশ্রমিক চাইছেন প্রিয়াঙ্কা। অন্যথায় তাকে পাওয়া যাচ্ছে না। ‘তার কারণে সিনেমায় এ পর্যন্ত ২০ লাখেরও বেশি টাকা অতিরিক্ত খরচ হয়েছে। তার পারিশ্রমিকের পুরোটা নেয়ার পরও ডাবিং কেন করছেন না বুঝছি না।’ বাকি অভিনয় শিল্পীদের ডাবিং শেষ হলেও প্রিয়াঙ্কার জন্য অপেক্ষায় থাকতে হচ্ছে বলে জানালেন এ পরিচালক। ২০১৭ সালে শুটিং শুরু হওয়া এ ছবিতে প্রিয়াঙ্কার বিপরীতে অভিনয় করেন চিত্রনায়ক নিরব।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]