এক বালকের মুখ থেকে ৫২৬টি দাঁত অপসারণ

আমাদের নতুন সময় : 03/08/2019

রাশিদ রিয়াজ : ভারতের চেন্নাইয়ের দক্ষিণাঞ্চলের ওই হাসপাতালে সাত বছরের বালকটি মুখে প্রচ- ব্যথা নিয়ে ভর্তি হবার পর এক্সরে করে চিকিৎসকরা বিস্ময়ে অভিভূত হয়ে পড়েন। বালকটির নিচের সারির দাঁতের ডান পাশে দেখা যায় অনেকগুলো ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র দাঁত। ডা. প্রতিভা রামানি যিনি দীর্ঘদিন ধরে সাভিথা ডেন্টাল কলেজ এন্ড হাসপাতালে অধ্যাপনা করছেন তিনিও এমনটি এর আগে কখনো দেখেননি। দুই জন সার্জন মিলে চার ঘন্টারও বেশি সময় মিলে অস্ত্রোপচারের পর একে একে ৫২৬টি দাঁত তুলে ফেলেন। এসব দাঁত অস্বাভাবিক তো বটেই এবং আকারে এগুলো শূণ্য দশমিক ১ মিলিমিটার বা দশমিক শুণ্য শুণ্য ৪ ইঞ্চি থেকে ১৫ মিলিমিটার বা শূন্য দশমিক ৬ ইঞ্চির সমান। চিকিৎসকরা বালকটির ২১টি দাঁত রেখে বাকিগুলো অপসারণ করেন। ইন্ডিপেনডেন্টএ

অস্ত্রোপচারের পর তিন দিন পর বালকটি হাসপাতাল থেকে বাসায় ফিরে যায়। তার বাবা বলছেন, ছেলেটি এখন পুরোপুরি সুস্থ। চিকিৎসকরা বলছেন, বালকটির এধরনের গুচ্ছ দাঁতের সমষ্টিকে চিকিৎসা বিজ্ঞানে খুবই বিরল এবং তা ‘কম্পাউন্ড কম্পোজিট ওডোটোমা’ হিসেবে পরিচিত। এটি জেনেটিক কারণে বা মোবাইল টাওয়ার থেকে রেডিয়েশনের কারণেও হয়ে থাকতে পারে বলে ডা. প্রতিভা রামানি জানান। বালকটির বয়স যখন ৩ বছর ছিল তখনি তার অভিভাবকরা বিষয়টি টের পান কিন্তু এত ছোট অবস্থায় দাঁত অপসারণের জন্যে তার বসে থাকা অসম্ভব ছিল বলে তার চিকিৎসা করা সম্ভব হয়নি। বালকটির বাবা বলেন, আমার ছেলে এখন পুরোপুরি সুস্থ এবং খেতে পারছে। স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসায় আমরা সবাই খুশি। সম্পাদনা : ইকবাল খান

 

 




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]