• প্রচ্ছদ » » পাকিস্তানের আজাদ-কাশ্মীরের স্বাধীনতা লাগবে, চীনের দখলকৃত আসকাই অঞ্চলের স্বাধীনতা নিয়েও কিছু লিখুন


পাকিস্তানের আজাদ-কাশ্মীরের স্বাধীনতা লাগবে, চীনের দখলকৃত আসকাই অঞ্চলের স্বাধীনতা নিয়েও কিছু লিখুন

আমাদের নতুন সময় : 08/08/2019

সুলতান মির্জা

আজাদ-কাশ্মীর ১৩২৯৭ বর্গকিলোমিটারের এই ভ‚খÐটি ১৯৪৭ সাল থেকেই পাকিস্তানের দখলে রয়েছে। আজাদ-কাশ্মীর স্বশাসিত হলেও আজাদ-কাশ্মীর পাকিস্তানের ভ‚মি হিসেবেই বিবেচিত হয়। এতে ভারতের কোনো সমস্যা হয় না, বাঙালি মুসলিম বিপ্লবীদের কোনো সমস্যা হয় না। যদিও আজাদ-কাশ্মীরের অভ্যন্তরের চিত্র সেম জম্মু-কাশ্মীরের মতো নির্যাতিত কোণঠাসা তারপরও কোনো সমস্যা হয় না কারও। এই অঞ্চলের আরেক অংশের নাম হলো আসকাই। ১৯৪৭ সালের দেশ ভাগের আগে আসকাই ছিলো লাদাখের অংশ, ৪৭ সালের পরে ৩৭ হাজার বর্গকিলোমিটারের এই ভ‚খÐটি চীন দখল করে নেয়। জিংজিয়াং প্রদেশের অংশ বানিয়েছে। এই বিষয়ে পাকিস্তানের কোনো সমস্যা নেই, সমস্যা নেই বাঙালি মুসলিম ফেসবুকারীদের।অপরদিকে জম্মু-কাশ্মীর ২২২২৩৬ বর্গকিলোমিটারের ভ‚খÐ ১৯৪৭ সাল থেকে ভারত নিয়ন্ত্রিত স্বশাসিত ভ‚খÐ হলেও জম্মু-কাশ্মীরকে ভারতের ভ‚খÐ বলতে পাকিস্তানের সমস্যা আছে, বাঙালি মুসলিম বিপ্লবী জিহাদী ভাইদের সমস্যা আছে। প্রশ্ন উঠে যায় জম্মু-কাশ্মীরের জনগণের অধিকার নিয়ে। এই হলো অবস্থা। প্রশ্ন হচ্ছে এর কারণ কি? হ্যাঁ পাকিস্তানের আজাদ-কাশ্মীর, চীনের আসকাই, ভারতের জম্মু-কাশ্মীর দখলদার তিন প্রতিবেশী দেশের মধ্যে কার্যত একমাত্র জম্মু-কাশ্মীরে ভারত কিংবা জম্মু-কাশ্মীরের লোকেরা পাদ দিলেও সেটা মিডিয়াতে আসে। কারণ বিরোধ তিন অঞ্চলের মধ্যে জম্মু-কাশ্মীরের যোগাযোগ স্পেসটা ভালো। অপরদিকে পাকিস্তানের আজাদ-কাশ্মীর, চীনের আসকাই অঞ্চলে দখলদারেরা পাদ দিয়ে হাগু করে দিলেও গন্ধটা বাতাসে মিশে যেতে তিন মিনিটের বেশি সময় নেয় না। হ্যাঁ যদিও আমাদের এই দেশীয় ফেসবুকিং অ্যাক্টিভিজমে জম্মু-কাশ্মীরের কিছু আসবে যাবে না তবুও দুইটা কথা বলতে চাই সেটা হলো অধিকার নিয়ে কথা বললে শুধু জম্মু-কাশ্মীরের স্বাধীনতার কথা বলবেন কেন? পাকিস্তানের আজাদ-কাশ্মীরের স্বাধীনতা লাগবে, চীনের দখলকৃত আসকাই অঞ্চলের স্বাধীনতা নিয়েও কিছু লিখুন। ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]