• প্রচ্ছদ » আমাদের বাংলাদেশ » মোদী মুক্তি দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন, জানেনা কাশ্মীরি জনতা জানার সুযোগ পেলে বলতেন ‘উন্মুক্ত কারাগারের বাসিন্দা’


মোদী মুক্তি দেয়ার ঘোষণা দিয়েছেন, জানেনা কাশ্মীরি জনতা জানার সুযোগ পেলে বলতেন ‘উন্মুক্ত কারাগারের বাসিন্দা’

আমাদের নতুন সময় : 11/08/2019

অধ্যাপক আলী রিয়াজের ফেসবুক স্ট্যাটাস

গত ৬ আগস্ট ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী সংবিধানের ৩৭০ নং অনুচ্ছেদের ৩৫এ ধারা বাতিলের পরেই নিজ টুইট বার্তায় জানালেন, জম্মু ও কাশ্মীর আজ শৃঙ্খলমুক্ত হলো। দুদিন পর ৮ আগস্ট জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া টেলিভিশনে স¤প্রচারিত ভাষণে একই মুক্তির বাণী পুনরাবৃত্তি করেন তিনি।
ভালোই মুক্তি পেয়েছে কাশ্মীরিরা। তাদের ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন, টেলিভিশন স¤প্রচার বন্ধ। প্রকাশনা বন্ধ স্থানীয় সংবাদমাধ্যমের। কোন সংযোগ নেই বহিঃবিশ্বের সাথে, সারা ভারতের সঙ্গে। ফলে কোন কাশ্মীরী জানতেই পারলেন না তাদের শেকল মুক্তির ঘোষণা এসেছে, ভাগ্য বিধাতার দরবার থেকে। এই স্বাধীনতা তাদের কাছে নিঃসন্দেহে অনেক বড় সংবাদ হতে পারতো।
কারণ এই স্বাধীনতার ঘোষণা না জানলেও তারা হাজারে হাজারে গ্রেপ্তার হচ্ছেন। ঘরের বাহিরে নিñিদ্র কারফিউ কায়েম করছে মহাপরাক্রমশালী রাষ্ট্রের সকল সামরিক পেশি। অনির্দিষ্ট এই কারফিউয়ের মেয়াদ জানেনা কেউ। পুরো উপত্যকা যেন প্রেতপুরী। প্রতি কোনায় সামরিক চেকপোস্টে লালচক্ষু উর্দিধারী সেনা। সব ধরনের বিক্ষোভ দমনের চেষ্টার কোন কার্পণ্য নেই তাদের। আতঙ্ক, ভয়, শঙ্কা আর অনিশ্চিতের যাত্রী ভূস্বর্গের সবাই। কাশ্মীরিরা শেকল ছাড়া, দমন ছাড়া আর কিছুই দেখতে পারছেন না।
বিবিসির এক প্রতিবেদক গত দুদিন ধরে সমগ্র কাশ্মীর উপত্যকা ভ্রমণ করে এই অবস্থা স্বচক্ষে প্রত্যক্ষ করেছেন। ‘এই সময় তিনি মোদীর স্বাধীনতার মানে জেনেছেন রিজওয়ান মালিক নামক এক কাশ্মীরির কাছে। রিজওয়ানের ভাষায়, আজ কাশ্মীর খোলা আকাশের নীলের নিচে যেন এক উন্মুক্ত বন্দীশালা।’ অনুবাদক : নূর মাজিদ।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]