জি-৭ সম্মেলনে বরিস জনসন, ব্রিটেন ইইউ থেকে সরছে, বিশ্ব সম্প্রদায় থেকে নয়

আমাদের নতুন সময় : 24/08/2019

লিহান লিমা : ফ্রান্সে অনুষ্ঠিত জি-৭ দেশগুলোর শীর্ষ সম্মেলনের পূর্বে ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, ইউরোপিয় ইউনিয়ন থেকে ব্রিটেনের বেরিয়ে যাওয়ার মানে এই নয় যে ব্রিটেন আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় থেকে দূরে সরে যাচ্ছে। বরিস জনসন আরো বলেন, ব্রেক্সিটের পর ব্রিটেন একটি ‘কর্মচঞ্চল সহযোগী’ দেশ হবে। বিবিসি।
ব্রিটেনের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিজের প্রথম আন্তর্জাতিক সম্মেলনে বরিস জনসন ইউরোপিয় কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড টাস্কের সঙ্গে ব্রেক্সিট পরিকল্পনা ও মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে বাণিজ্য আলোচনা করবেন। শনিবার সম্মেলন শুরুর পূর্বে শুক্রবার ট্রাম্প ও বরিস ফোনে ‘বৈদেশিক নীতি ও বৈশ্বিক বাণিজ্য’ নিয়ে কথা বলেন। এদিন বরিস জনসন বলেন, ‘কিছু মানুষ আমাদের দেশের গণতান্ত্রিক সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন তুলছে, তারা আশঙ্কাও করছে আমরা এর ফলে বিশ্ব থেকে বিছিন্ন হয়ে যাবো, আবার কেউ ভাবছে ব্রিটেনের সেরা দিনগুলোকে পেছনে ফেলে যাবো আমরা। সেই মানুষদের উদ্দেশ্যে আমি বলবো, আপনারা ভুল করছেন।’
বরিসের এই মন্তব্যের পূর্বে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ ব্রেক্সিট পরবর্তী ব্রিটেন-যুক্তরাষ্ট্র বাণিজ্য চুক্তি নিয়ে বলেন, এর ফলে ব্রিটেন হবে ‘জুনিয়র পার্টনার’ যাকে কি না এক ধরনের ‘ঐতিহাসিক কল্পনা’ও বলা যায়। ট্রাম্প ক্রমাগত বরিসকে এটি তড়িৎ চুক্তির কথা বলে যাচ্ছেন। তবে ব্রিটেন কোন তাড়াহুড়োর বদলে ধীরে-সুস্থে একটি চুক্তিতে আসতে চাইছে।
জি-৭ সম্মেলনে যোগ দেয়ার পূর্বে বরিস জনসন উত্তর আয়ারল্যান্ড সীমান্তে ব্যাকস্টপ ইস্যুতে ইউরোপের কাছ থেকে ৩০ দিন সময় নিয়েছেন। ব্রেক্সিটের পর এই ব্যাকস্টপ ধারা কার্যকর হলে যুক্তরাজ্যভুক্ত উত্তর আয়ারল্যান্ডকে ইউরোপের একক বাজারের কিছু নীতি মেনে চলতে হবে। বুধবার জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা মের্কেল বরিসের সঙ্গে সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, ব্যাকস্টপের বিকল্প একটি কার্যকরী প্রস্তাব গৃহিত হতে পারে। কিন্তু এর পরদিনই ম্যাক্রোঁ বলেছেন, ইইউ’র রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা ও একক বাজারের প্রধান নীতি রক্ষার্থে ব্যাকস্টপ অপরিহার্য। এদিকে জনসন বলছেন, চুক্তি হোক বা না হোক, ৩১ অক্টোবরের মধ্যেই ইইউ থেকে বেরিয়ে যাবে ব্রিটেন। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]