মোদী খুনী, তবে ইমরানের কথা বলার বৈধতা নেই, বললেন বিলাওয়াল

আমাদের নতুন সময় : 26/08/2019

লিহান লিমা: পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে আক্রমণ করে পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) প্রধান বিলাওয়াল ভুট্টো জারদারি বলেছেন, তিনি নিজেই পাকিস্তানের গণতন্ত্রের অন্তেষ্টিক্রিয়ার জন্য দায়ী তবে তিনি কিভাবে কাশ্মীর নিয়ে কথা বলবেন। জারদারি আরো বলেন, আগে থেকেই নির্ধারিত কোন প্রধানমন্ত্রী নয়, একমাত্র গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রীই কাশ্মীর ইস্যুতে লড়তে পারেন। ডন।
এই সময় বিলাওয়াল কাশ্মীর যাওয়ার সময় ভারতের বিরোধী দল কংগ্রেসের সাবেক সভাপতি রাহুল গান্ধীকে বিমানবন্দর থেকে ফেরত পাঠানোর নিন্দা জানান। বলেন, ‘এটি দুঃখজনক। সরকার তার কাছ থেকে কি লুকোতে চাইছে? যদি সবকিছুই স্বচ্ছ হয়, তারা ভালো কাজই করে থাকে তবে নিজ দেশের বিরোধী দলীয় নেতাকে কেনো থামানো হচ্ছে?’।
রোববার এক সংবাদ সম্মেলনে বিলাওয়াল আরো বলেন, পাকিস্তানিরা খুব ভালো করেই জানে দখলকৃত কাশ্মীরে ভারত ‘ঐতিহাসিক অবিচার’ চালিয়েছে, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একজন হত্যাকারী। কিন্তু সেই সঙ্গে মানুষ এটিও খুব ভালোভাবে জানে যে ইমরান খানের দখলকৃত কাশ্মীর ও গিলগিট বেলুচিস্তান নিয়ে কথা বলার কোনো বৈধতা বা যোগ্যতা নেই।
বিলাওয়াল প্রশ্ন তোলেন, যিনি কি না নিজের দেশের গণমাধ্যমের ওপর বিপুল বিধি-নিষেধ আরোপ করে রাখেন তিনি কিভাবে কাশ্মীরের অবিচার ও সেখানে গণমাধ্যমকর্মীদের প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা নিয়ে কথা বলবেন? যখন তিনি নিজেই মানবাধিকারকে রুদ্ধ করে রাখেন তখন তিনি কিভাবে কাশ্মীরের মানবাধিকার নিয়ে আওয়াজ তুলবেন? নিজ দেশের গণতন্ত্রের সমাধি গেড়ে কিভাবে তিনি কাশ্মীরের গণতন্ত্র নিয়ে সোচ্চার হবেন? বিলাওয়াল বলেন, কাশ্মীরে ভারতের সেনাবাহিনীর দখলদারিত্ব আর পাকিস্তানে মানবাধিকার ও গণতন্ত্রকে খর্ব করার পরিস্থিতির মধ্যে কোন তফাত নেই। যদি পাকিস্তানে আজ সত্যিকারের গণতান্ত্রিকভাবে নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রী থাকতো তবে অবশ্যই নৈতিক কর্তৃত্ব নিয়ে কাশ্মীরের জন্য লড়তে পারতো। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]