• প্রচ্ছদ » নগর মহানগর » ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক ফোরামের প্রতিবেদন, বৈশ্বিক পর্যটন সূচকে পাঁচ ধাপ এগিয়ে ১২০তম বাংলাদেশ, শীর্ষে স্পেন


ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক ফোরামের প্রতিবেদন, বৈশ্বিক পর্যটন সূচকে পাঁচ ধাপ এগিয়ে ১২০তম বাংলাদেশ, শীর্ষে স্পেন

আমাদের নতুন সময় : 06/09/2019


লিহান লিমা : ২০১৯ সালে বিশ্বজুড়ে ভ্রমণ ও পর্যটনের সূচক প্রকাশ করেছে ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক ফোরাম। এই তালিকায় পর্যটনের জন্য বিশ্বের সেরা পাঁচ দেশের তালিকায় শীর্ষে রয়েছে স্পেন। এরপরই আছে ফ্রান্স, জার্মানি, জাপান ও যুক্তরাষ্ট্র। তালিকার ১৪০টি দেশের মধ্যে ৩.১ ভাগ স্কোর নিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান ১২০তম। প্রতিবেদন অনুযায়ী বাংলাদেশে ১ লাখ ২৫ হাজার আন্তর্জাতিক পর্যটক এসেছে। ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক ফোরাম। দুই বছর পূর্বের প্রকাশিত প্রতিবেদনের সঙ্গে এবারের প্রতিবেদনের খুব একটা পরিবর্তন হয় নি। ২০১৫ সাল থেকেই ডব্লিউইএফ এর তালিকায় শীর্ষ স্থান ধরে রেখেছে স্পেন। এবারের তালিকায় যুক্তরাজ্যের এক ধাপ অবনতি হয়। ষষ্ঠ স্থান থেকে পঞ্চম স্থানে উঠে আসে যুক্তরাষ্ট্র। শীর্ষ দশে আরো রয়েছে অস্ট্রেলিয়া, ইতালি, কানাডা ও সুইজারল্যান্ড। প্রতিবেদনে উঠে আসে, ২০১৭ সালের তুলনায় বৈশ্বিক পর্যটন খাতের সমৃদ্ধি দেখা গিয়েছে। বৈশ্বিক জিডিপিতে বর্তমানে এর অবদান ১০ শতাংশ। যা আগামী দশকে ৫০ শতাংশ হওয়ার প্রত্যাশা করছে ওয়ার্ল্ড ইকোনোমিক ফোরাম।
পর্যটক আকর্ষণে একটি দেশের নিরাপত্তা, অবকাঠামো সুবিধা, উন্নত বিমানবন্দর, আবাসন ব্যবস্থা, বন্দর সুবিধা, ঐতিহ্য এবং সংস্কৃতির অবস্থাসহ ১৪টি সূচকের ভিত্তিতে এই প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে। এবারের সূচকে বাংলাদেশের পাঁচ ধাপ অগ্রগতি হয়েছে। ২০১৫ সালে ১৪১টি দেশের মধ্যে ২.৯ ভাগ স্কোর নিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান ছিলো ১২৭তম। ২০১৭ সালে ১৩৬টি দেশের মধ্যে ২.৯ ভাগ স্কোর নিয়ে বাংলাদেশের অবস্থান ছিলো ১২৫তম। পাশ্ববর্তী ভারত আছে ৩১তম অবস্থানে। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে সর্বনি¤œস্থানে রয়েছে পাকিস্তান। নেপাল ১০২ ও শ্রীলংকা ৭৭তম অবস্থানে আছে।
এবারের সূচকে ব্যবসায় ও পর্যটনে নিরাপত্তার দিক দিয়ে ১২৩ থেকে ১০৫তম স্থানে আসে বাংলাদেশ। তথ্যপ্রযুক্তি প্রস্তুতির সূচকে ১১৬ থেকে ১১১তম অবস্থানে উঠে এসেছে বাংলাদেশে। ভ্রমণ ও পর্যটনে অগ্রাধিকার সূচকে ১২৭ থেকে ১২১তম অবস্থানে, মূল্য প্রতিযোগিতায় ৮৯তম থেকে ৮৫তম অবস্থানে, মূল্যের পরিস্থিতিতে ৮৯ থেকে ৮৫তম, সড়ক ও বন্দর অবকাঠামোয় ৭৮ থেকে ৬০তম, স্থল ও বন্দর অবকাঠামোর সূচকে ৭৪ থেকে ৬০তম অবস্থানে উঠে আসায় সার্বিক সূচকে উন্নতি হয়েছে। এছাড়া ব্যবসায়িক পরিবেশে ৯৪তম, স্বাস্থ্য সুরক্ষায় ১০৩তম, মানবসম্পদ ও শ্রমবাজারে ১২০তম, আন্তর্জাতিক উন্মুক্ততার দিক দিয়ে ১১৪তম, পরিবেশগত স্থিতিশীলতায় ১১৬তম, বিমান যোগাযোগ অকাঠামামোয় ১১১তম, পর্যটক সেবা অবকাঠামোয় ১৩৩তম, প্রাকৃতিক সম্পদে ১০৯তম, সাংস্কৃতিক সক্ষমতা ও ব্যবসায়িক পর্যটনে ৭৫তম। আন্তর্জাতিক অকপটতায় ১০৪ থেকে ১১৪ নম্বরে নেমে এসেছে। পর্যটন সেবা অবকাঠামোতে বাংলাদেশের অবস্থান অনেক নিচে, ১৩৩ নম্বরে। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]