• প্রচ্ছদ » সর্বশেষ » সাক্ষরতার সঙ্গে কারিগরি দক্ষতা বাড়ানোর আহ্বান জানালেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী


সাক্ষরতার সঙ্গে কারিগরি দক্ষতা বাড়ানোর আহ্বান জানালেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী

আমাদের নতুন সময় : 09/09/2019


আরিফা রাখি : দেশে ৭৩ দশমিক ৯ শতাংশ মানুষকে সাক্ষরতার আওতায় আনতে সক্ষম হয়েছে সরকার। সারাদেশে এখনো ২৬ ভাগ মানুষ নিরক্ষর। শুধুমাত্র সাক্ষরতা বাড়ালেই হবে না, একইসঙ্গে জনগোষ্ঠীর কারিগরি দক্ষতাও বাড়াতে হবে।
গতকাল রোববার সাক্ষরতা দিবস হিসেবে সারা বিশ্বের মত বাংলাদেশও পালন করেছে দিবসটি। এ উপলক্ষে সকালে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব আকরাম আল হোসেনের সভাপতিত্বে রাজধানীর শিল্পকলা একাডেমির জাতীয় নাট্যশালার মূল হলে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয় সাক্ষরতা দিবস।
বিশ্বে অত্যাধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার হলেও সমস্ত দুনিয়ার সমগ্র মানুষ আজও শিক্ষার আলো গ্রহণ করতে পারেনি। ২০১৮ সালে গড় সাক্ষরতার হার ছিল ৭২ দশমিক ৯ শতাংশ। সর্বশেষ হিসাব আনুযায়ী, গত একবছরে সারাদেশে সাক্ষরতার হার বেড়েছে ১ শতাংশ।
মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, শুধুমাত্র সাক্ষরতা বাড়ালেই হবে না, একইসঙ্গে আমাদের জনগোষ্ঠীর দক্ষতাও বাড়াতে হবে। শিক্ষিত মানেই দক্ষতা বাড়ানো। সাক্ষরতার পাশাপাশি কারিগরি দক্ষতা বাড়াতে পারলে তবেই জনশক্তিকে জনসম্পদে পরিণত করা সম্ভব। জাকির হোসেন বলেন, সাক্ষরতা জীবনে নতুন মাত্রা যোগ করে। নতুন দক্ষতা বাড়াতে সাহায্য করে। জীবনব্যাপী শিক্ষার দ্বার উন্মোচন করতে সবার আগে তাই প্রয়োজন সারক্ষরতা। সাক্ষরতা দিবসের এবারের প্রতিপাদ্য বিষয়: বহুভাষায় সাক্ষরতা, উন্নত জীবনের নিশ্চয়তা।
অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী অ্যাডভোকেট মোস্তাফিজুর রহমান ও প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন। সম্পাদনা : ওমর ফারুক




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]