চীনা প্রতিনিধিদলের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন স্বদেশে ফিরতে বসতভিটা ফেরত ও নিরাপত্তার দাবি রোহিঙ্গাদের

আমাদের নতুন সময় : 16/09/2019


শ.ম.গফুর ও ফরহাদ আমিন : কেড়ে নেয়া ভিটেমাটি ও নিরাপত্তা দিলে নিজ দেশ মিয়ানমারে ফিরে যাবেন বলে চীনের প্রতিনিধিদলকে জানিয়েছে তুমব্রু সীমান্তে অবস্থানরত রোহিঙ্গারা।
গতকাল রোববার বিকালে বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনের রাষ্ট্রদূত লি জিমিংয়ের কাছে এসব দাবি জানান তারা। কী করলে মিয়ানমারে ফিরে যাবেন, লি জিমিং-এর এমন প্রশ্নের উত্তরে রোহিঙ্গারা দুটি দাবি মেনে নিলে ফিরে যাওয়ার কথা জানান।
তুমব্রু সীমান্তে রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলে চীনের রাষ্ট্রদূত ঘুমধুম সীমান্তের ট্রানজিট ঘাট ও মিয়ানমার-বাংলাদেশ মৈত্রী সেতু পরিদর্শন করেন। এ সময় তার সঙ্গে ছিলেন, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (অতিরিক্ত) শামসুদ্দৌজা নয়নসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা।
ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (অতিরিক্ত) শামসুদ্দৌজা নয়ন বলেন, তিনদিনের সফরে কক্সবাজার এসেছেন চীনের রাষ্ট্রদূতের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল। তুমব্রু সীমান্তের রোহিঙ্গাদের সঙ্গে কথা বলার পাশাপাশি বিভিন্ন সীমান্ত পয়েন্ট পরিদর্শন করেছেন প্রতিনিধিদলের সদস্যরা।
গতকাল রোববার বেলা ১১টার দিকে কক্সবাজার বিমানবন্দরে পৌঁছায় চীনের প্রতিনিধি দল। আজ সোমবার সকালে টেকনাফের বিভিন্ন রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যাবে প্রতিনিধিদলটি। সেখানেও শরণার্থী রোহিঙ্গাদের মতামত নেবেন প্রতিনিধিদলের সদস্যরা। পরিদর্শন শেষে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন বিষয়ে প্রশাসনের শীর্ষ কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করবেন চীনের রাষ্ট্রদূত লি জিমিং।
গত ২২ আগস্ট রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া শুরু করতে প্রতিনিধিদল পাঠিয়েছিল চীন। চীনের প্রতিনিধিদের উপস্থিতিতে রোহিঙ্গাদের সঙ্গে আলোচনা করে সরকার। কিন্তু রোহিঙ্গারা রাজি না হওয়ায় সেই প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া স্থগিত হয়ে যায়। সম্পাদনা : মুরাদ হাসান, ওমর ফারুক




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]