• প্রচ্ছদ » সর্বশেষ » ট্রা¤প-মোহাম্মদ সালমান ফোনালাপ, সৌদি আরবের নিরাপত্তা রক্ষার প্রতিশ্রুতি দিলো যুক্তরাষ্ট্র


ট্রা¤প-মোহাম্মদ সালমান ফোনালাপ, সৌদি আরবের নিরাপত্তা রক্ষার প্রতিশ্রুতি দিলো যুক্তরাষ্ট্র

আমাদের নতুন সময় : 16/09/2019


নূর মাজিদ : বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহৎ তেল রপ্তানিকারক সৌদি আরবের সবচেয়ে বড় তেল শোধনাগারে ড্রোন হামলার তীব্র প্রতিবাদ জানিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। হুথি বিদ্রোহীরা এই হামলার দায় স্বীকার করলেও, যুক্তরাষ্ট্রের দাবি হামলার নেপথ্যে মূল পরিকল্পনাকারী ইরান। গত শনিবার রাতের এক বিবৃতিতে সৌদি আরবের জাতীয় নিরাপত্তা রক্ষায় যুক্তরাষ্ট্র দৃঢ় অঙ্গীকারবদ্ধ এমন কথা জানিয়েছে হোয়াইট হাউজ সূত্র । খবর : হিন্দুস্তান টাইমস।
প¤েপও বলেন, ইয়েমেন থেকে হামলা চালানো হয়েছে এর কোন প্রমাণ নেই। সকল পক্ষের তরফ থেকে উত্তেজনা নিরসনের আহব্বান জানানো স্বত্বেও ইরান বিশ্বের জ্বালানি সরবরাহ ব্যবস্থায় চিড় ধরাতে চাইছে।
হোয়াইট হাউজ সূত্র জানায়, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রা¤প সৌদি আরবের অঘোষিত শাসক ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে এক ফোনালাপে এই হামলার তীব্র নিন্দা করেছেন। একইসঙ্গে, তিনি দেশটির জাতীয় নিরাপত্তা রক্ষায় যুক্তরাষ্ট্র আগামী দিনেও একসঙ্গে কাজ করবে, এমন আশ্বাস দেন।
সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা এসপিএ জানায়, ‘ফোনালাপের সময় যুবরাজ বিন সালমান এই হামলার উচিৎ জবাব দেয়ার কথা বলেছেন। তিনি বলেন, সন্ত্রাসী আগ্রাসন মোকাবেলা এবং তার জবাব দেয়ার সক্ষমতা ও ইচ্ছে রিয়াদের আগে থেকেই ছিলো । এবং এখনো আছে।’
রিয়াদে নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত জন আবিজাইদ বলেন, ‘বেসামরিক স্থাপনার বিরুদ্ধে এমন হামলা অগ্রহণযোগ্য। এই ধারা অব্যাহত থাকলে খুব শীঘ্রই জনসাধারণের প্রাণহানি হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।’
ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী আন্ড্রু মরিসন, বেসামরিক অঞ্চল এবং অর্থনৈতিক অবকাঠামোতে হামলা বন্ধ করতে হুথিদের প্রতি আহব্বান জানিয়েছেন।
সৌদি থেকে দৈনিক ৭০ লাখ ব্যারেল তেল সরবরাহ করা হয় বিশ্ববাজারে। গত অগাস্ট মাস থেকেই দেশটি প্রতিদিন ৯৮ লাখ ব্যারেল তেল উত্তোলন করছে। গত শনিবারের হামলায় আবকেইক থেকে উৎপাদন অর্ধেকে নেমে আসে। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]