• প্রচ্ছদ » সম্পাদকীয় » হাফিজ উদ্দিন খান বললেন, পাওনা টাকা আদায়ে জিপি ও রবিতে বিটিআরসির প্রশাসক বসানোর উদ্যোগ যৌক্তিক


হাফিজ উদ্দিন খান বললেন, পাওনা টাকা আদায়ে জিপি ও রবিতে বিটিআরসির প্রশাসক বসানোর উদ্যোগ যৌক্তিক

আমাদের নতুন সময় : 16/09/2019

আমিরুল ইসলাম : দেশের দুই শীর্ষ টেলিযোগাযোগ কোম্পানি গ্রামীণফোন ও রবিতে প্রশাসক বসিয়ে পাওনা টাকা আদায় করতে চায় বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। জিপি ও রবিতে বিটিআরসির প্রশাসক বসানোর উদ্যোগ যৌক্তিক কিনা জানতে চাইলে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সাবেক উপদেষ্টা এম হাফিজউদ্দিন খান বলেন, গ্রামীণফোন ও রবিতে বিটিআরসির প্রশাসক বসানোর উদ্যোগ যৌক্তিক।
তিনি বলেন, আইনে প্রশাসক নিয়োগের সুযোগ রয়েছে এবং এক্ষেত্রে সরকারেরও সায় রয়েছে। সরকার সত্যি সত্যিই পাওনা থাকলে টাকা আদায়ের জন্য যা যা করার দরকার সব কিছু করতে পারে। পাওনা টাকা আদায়ের জন্য বিভিন্ন ধরনের মেকানিজম রয়েছে। বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণের আইনের ৪৬ ধারা অনুযায়ী কোনো অপারেটর লাইসেন্সের শর্ত ভঙ্গ করলে তার লাইসেন্স বাতিল ও স্থগিত করতে পারে বিটিআরসি। লাইসেন্স স্থগিত করা হলে সরকারের অনুমোদন নিয়ে প্রশাসক বা (অ্যাডমিনিস্ট্রেটর বা রিসিভার) নিয়োগ দেয়া যায়। তবে অর্থ প্রাপ্তির বিষয়ে দুই পক্ষ দুই রকম কথা বলছে। এক্ষেত্রে অর্থ প্রাপ্তির বিষয়টি আগে নিশ্চিত করতে করতে হবে বিটিআরসিকে। বিটিআরসি অর্থ প্রাপ্তির বিষয়টি সুনিশ্চিত করতে পারলে অর্থ আদায়ের জন্য যেকোনো পদক্ষেপ নিতে পারে।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]