• প্রচ্ছদ » » মানুষ হিসেবে আমার পরিচয় কি আমার বাবাকে দিয়ে হবে?


মানুষ হিসেবে আমার পরিচয় কি আমার বাবাকে দিয়ে হবে?

আমাদের নতুন সময় : 19/09/2019

সৈয়দ সাইফ

‘তোমার বাবা কী করে?’এই প্রশ্নটা খুবই আপত্তিকর। একটা ছোট শিশু নিজেকে চিনতে শেখার আগেই তাকে শিখতে হচ্ছে তার বাবার পেশা। অবশ্য, নামেই পেশা! মূলত সেটা সামাজিক পরিচিতি। ছেলেবেলা থেকেই আমার বন্ধুদের সংখ্যা অনেক, যার সাথে যখন পরিচয় হয়, তার সাথেই সখ্যতা গড়ে উঠে, সে যেই হোক। বানী নামে এমনই একজন বন্ধু হয়েছিলো আমার, আর ওর ভাইয়ের নাম ছিলো হাসিব, সেও আমার বন্ধু ছিলো। কিছুটা তোতলা ছিলো হাসিব। তাদের বাবা পেশায় একজন ট্রাক চালক, মা ছিলেন গার্মেন্টস কর্মী। একটা মাত্র ঘর ভাড়া নিয়ে হাসিবরা থাকতো মনেশ্বর এলাকায়। বিকেলে গলির ভেতর ফুটবল খেলতে সব ছেলেরাই যেতো, সবার বাবাই কিছু না কিছু করে, শুধু বানী-হাসিবের বাবা একজন ট্রাক চালক। ট্রাক চালক হওয়া কোনো অপরাধ না হলেও সেই বয়সেই আমরা বুঝতে পারতাম সচিব-ডাক্তার-ব্যারিস্টারের মতো সামাজিক সম্মান এই পেশায় নেই। কলেজে প্রথম দিনের ইকনোমিক্স ক্লাস। টিচার সবার নাম জানতে চাইছেন, কে কোথায় থাকে, কার বাবা কি করে। রাবেয়া নামে একটা মেয়ে ছিলো সে মাথা নিচু করে বললো, ‘আমার বাবা বাবুর্চির কাজ করে’। পুরো ক্লাস হো হো করে হেসে উঠলো। রাবেয়াকে আর কোনোদিন ওর বাবা কী করে সেটা কারও কাছে বলতে শুনিনি। সবার বাবাই সবার কাছে ঈশ্বরের মতো। নিজের পেশা নিজের কাছে সর্বশ্রেষ্ঠ, এই মতবাদ প্রমাণের জন্য আজকের পৃথিবীতে সকল পেশার সমান মূল্যায়ন হয়তো কখনো হবে না। কিন্তু মেথরের সন্তানের কাছে তার বাবা, আর প্রেসিডেন্টের সন্তানের কাছে তার বাবা, সবসময় একই রকম থাকবে। কেনো শিশুদের মাথায় আমরা ঢুকিয়ে দিচ্ছি এই ভ্রষ্ট ধারণাটা- তোমার বাবা কিছুই না/ তোমার বাবা একদম হাতি-ঘোড়া? কী যায় আসে যদি আমার বাবা কিছুই না হন? কী যায় আসে যদি আমার বাবা দেশের সবচেয়ে পরিচিত ব্যক্তি হন? মানুষ হিসেবে আমার পরিচয় কি আমার বাবাকে দিয়ে হবে? ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]