হংকং-এ কারফিউ জারির আহ্বান পুলিশের

আমাদের নতুন সময় : 04/10/2019


আসিফুজ্জামান পৃথিল : বিক্ষোভকালীন এক কিশোর গুলিবিদ্ধ হওয়ার প্রেক্ষিতে বৃহস্পতিবার সকালে আবারো পুশিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে হংকং এর বিক্ষোভকারীরা। এরপরই হংকং পুলিশ সরকারের কাছে কারফিউ জারির অনুরোধ করে। তারা বলছে, এ ছাড়া বিক্ষোভ দমনের আর কোনো উপায় নেই। সিএনএন, ইয়ন নিউজ। বুধবার রাত থেকে এশিয়ার অর্থনৈতিক হাবটির রাস্তায় জড়ো হতে থাকেন বিক্ষোভকারীরা। তারা আগুন লাগিয়ে বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা বন্ধ করে দেন। লোকানপাট ভাঙচুর করেন। কয়েকটি মেট্রো স্টেশনও এসময় ভাঙচুরের শিকার হয়। তাদের ছত্রভঙ্গ করতে এসময় পুলিশ টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করে। বিক্ষোভের বিষয়ে একজন বিক্ষোভকারী অ্যালেক্স চ্যান বলেন, ‘আমার ধারেকাছে যেখানেই বিক্ষোভ হোক, আমি যাবো। আমি খুব সাধারণ এক কারণে আজ রাতে বাইরে এসেছি। আপনারা এক কিশোরকে পয়েন্ট ব্ল্যাঙ্ক রেঞ্জ থেকে গুলি করেছেন। এই বিক্ষোভ চলবে। কেউ আমাদের দমাতে পারবে না।’
এদিকে, পুলিশের ছোড়া রবার বুলেটে এক চোখ নস্ট হয়ে গেছেন এক ইন্দোনেশিয় সাংবাদিকের। রোববার দায়িত্ব পালন করছিলেন ওই সাংবাদিক। এসময় একটি রবার বুলেট হিসেবে তার নিরাপত্তা চশমায় আঘাত করে। তার আইনজীবিরা জানিয়েছেন, এসময় চশমা ভেঙে তার বাম চোখে ঢুকে পরে। রোববার এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বড় বিক্ষোভ হয়েছে হংকং-এ। এই বিক্ষোভের সময় ২৬৯ জনকে আটক করেছে পুলিশ। ৩০ পুলিশ সহ আহত হন শতাধিক। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান
বার্তা ও বাণিজ্য বিভাগ ঃ ১৯/৩ বীর উত্তম কাজী নুরুজ্জামান সড়ক , পশ্চিম পান্থপথ, ঢাকা থেকে প্রকাশিত
ছাপাখানা ঃ কাগজ প্রেস ২২/এ কুনিপাড়া তেজগাঁও শিল্প এলাকা ,ঢাকা -১২০৮
ই- মেইল : [email protected]