কিশোরগঞ্জে কিশোর গ্যাং সাজ্জাদ গ্রুপের প্রধানসহ ১১ সদস্য আটক

আমাদের নতুন সময় : 11/10/2019


নাজমুল শাফায়েত : জেলা শহরের বত্রিশ বাসস্ট্যান্ড সংলগ্ন তাতিপাড়া এলাকা থেকে বৃহস্পতিবার রাতে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।
আটকরা হলো-কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার কালিয়াকান্দা গ্রামের আব্দুল আউয়ালের ছেলে কিশোর গ্যাং সাজ্জাদ গ্রুপের প্রধান সাজ্জাদ (১৭), কটিয়াদী উপজেলার গচিহাটা এলাকার মো. মোজাম্মেল হকের ছেলে আব্দুলাহ আল নোমান (১৬), একই উপজেলার করগাঁও গ্রামের মো. আইযুব হাজীর ছেলে মো. জুয়েল (১৬), জেলা শহরের উকিলপাড়া এলাকার মো. বুলবুল আহম্মেদের ছেলে মো. সানি আহাম্মেদ (১৬), স্টেশন রোড এলাকার ফজলুল মতিন সিদ্দিকির ছেলে ফজলুল করিম আকাশ (১৯), খরমপট্টি এলাকার সমির বৈষ্ণবের ছেলে সৌমিত্র বৈষ্ণব (১৬), বত্রিশ এলাকার মো. সুলতানের ছেলে ফজলে রাব্বি বাধন (১৮), একই এলাকার মুনসুর আলমের ছেলে মো. আনোয়ারুল ইসলাম (১৮), জালাল উদ্দিনের ছেলে মো. ইয়াছিন ইসলাম (১৮), রাখাল দত্তের ছেলে হৃদয় দত্ত (১৬) ও মোফাজ্জল ইসলামের ছেলে মো. আদনান ইসলাম (১৬)।
র‌্যাব-১৪ সিপিসি-২, কিশোরগঞ্জ ক্যাম্পের সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. মাহবুব-উল-আলম জানান, কিশোরগঞ্জ শহরের বত্রিশ এলাকায় নতুন পল্লীসংঘ মন্দিরে দুর্গাপূজা চলার সময় কিশোর গ্যাং সাজ্জাদ গ্রুপের প্রধান সাজ্জাদ ও তার দলের সদস্যরা মেয়েদের উত্যক্ত করার মাধ্যমে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করে।
এ সময় শুভ সরকার, প্রসেনজিৎ ঘোষ,এবং তনয় বর্মন নামের তিন কিশোর বাধা দিলে তাদের সঙ্গে বাকবিত-া হয়। এ ঘটনার জেরে ১০ অক্টোবর রাতে সাজ্জাদ গ্রুপের প্রধান সাজ্জাদ ও তার দলের সদস্যরা শুভ সরকার, প্রসেনজিৎ ঘোষ ও তনয় বর্মন বিকাশকে দেশিয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে।
আহত শুভ সরকার কিশোরগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে এবং প্রসেনজিৎ ঘোষ ও তনয় বর্মন বিকাশ ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ (মমেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। র‌্যাব কর্মকর্তা জানান, পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার জন্য আটকদের কিশোরগঞ্জ মডেল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। সম্পাদনা : মুরাদ হাসান, ওমর ফারুক




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]