• প্রচ্ছদ » » তসলিমা নাসরিন মনে আছে কি আপনার, সেন্টমার্টিন যাওয়ার পথে নৌকা যখন উত্তাল সমুদ্রের মধ্যে পড়েছিলো তখন আপনি আল্লাহকে ডাকাডাকি করছিলেন?


তসলিমা নাসরিন মনে আছে কি আপনার, সেন্টমার্টিন যাওয়ার পথে নৌকা যখন উত্তাল সমুদ্রের মধ্যে পড়েছিলো তখন আপনি আল্লাহকে ডাকাডাকি করছিলেন?

আমাদের নতুন সময় : 12/10/2019

তানজিমা হুসাইন : আপনাকে বলছি তসলিমা নাসরিন। আপনি কোথায় বসে ‘জ্ঞানগর্ভ’ বাণী দিচ্ছেন? আসুন আমাদের মেধাবী শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ান, রাস্তায় নামুন। ও স্যরি আপনি তো দেশেই থাকেন না। কেন আপনাকে দেশ ছাড়তে হয়েছে সে কথা দেশের বাচ্চা-টাচ্চা জানে। আপনি নারী হয়ে পুরুষের সমান মর্যাদা চান। পুরুষকে নীচু দেখাতে আপনাকেও অনেক নীচে নামতে হয়েছে। আপনি কোরআন শরীফের ওপরে চায়ের কাপ রেখে সিগারেট খেতে খেতে ইন্টারভিউ দিয়েছেন। আপনি নারীর মহিমা ক্ষুন্ন করতে দ্বিধা করেননি। নারী তো পুরুষের চাইতেও মহিমান্বিত। ‘কোনো কালে একা হয়নিতো জয়ী পুরুষের তরবারি, প্রেরণা দিয়াছে শক্তি দিয়াছে বিজয়লক্ষী নারী’। নারী মা। সেতো পুরুষের উচ্চে। এর ওপরে কোনো কথা নেই। সবার কাছ থেকে সম্মান পাবেন না। অশিক্ষিত অর্ধশিক্ষিত, কুশিক্ষিতদের কাছে সম্মান, মর্যাদা আশা করা বাতুলতা মাত্র। তাই বলে নারীত্বের ডিগনিটি পায়ে মাড়িয়ে অশ্লীল শব্দ প্রয়োগ করে মহামানবী হওয়া যায় না। আপনি একজন ডক্টর। অবশ্যই মেধাবী। আপনি আবরারকে মেধাবী মানেন না। সে পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ে। কোনো পার্টি করে না। আপনি বললেন যে নামাজী সে বিজ্ঞান মনষ্ক নয়, সাধারণ পড়–য়া ছাত্র। এই সময়ে এসব কথা বলা কি জরুরি? মানুষকে অপমান করতে আপনার ভালো লাগে। আপনার মা-বাবা ভাই নামাজ পড়েন না? আপনি কি তাদের নামাজ বন্ধ করতে পেরেছেন? মনে আছে সেন্টমার্টিন যাওয়ার পথে নৌকা যখন উত্তাল সমুদ্রের মধ্যে পড়েছিলো তখন আপনি আল্লাহকে ডাকাডাকি করছিলেন? (ডা. মোহিত কামালের লেখা থেকে) বাই দ্য ওয়ে আপনি মরার পর কবরস্থানে যাবেন নাকি শ্মশানে? শ্মশানে গেলেও তো আপনি অমুসলিম হিসেবে চিহ্নিত হবেন। দেশে আসুন। আপনার জন্মভ‚মিতে আপনার অধিকার প্রতিষ্ঠা করুন। কবে আসবেন? ভালো থাকবেন! ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]