• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » শুধু ছাত্রলীগের রাজনীতি বন্ধ করা উচিৎ ছিলো, দাবি প্রগতিশীল ছাত্রজোটের


শুধু ছাত্রলীগের রাজনীতি বন্ধ করা উচিৎ ছিলো, দাবি প্রগতিশীল ছাত্রজোটের

আমাদের নতুন সময় : 12/10/2019

 

শিমুল মাহমুদ : শনিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ দাবি জানান। ছাত্র রাজনীতি বন্ধের প্রতিক্রিয়ায় এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে প্রগতিশীল ছাত্রজোট। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন জোটের আহ্বায়ক ও সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের সভাপতি আল কাদেরী। তিনি বলেন, বুয়েটে ছাত্র রাজনীতি নিষিদ্ধের যে সিদ্ধান্ত হয় তাতে সব ধরনের বিরোধী সংগঠিত শক্তিকে দমন করা হবে। এ নিষেধাজ্ঞার মধ্য দিয়েই রাষ্ট্র, বিশ্ববিদ্যালয় এবং সমাজের যে কোনো অন্যায়ের বিরুদ্ধে সংগঠিত প্রতিবাদ, যে কোনো রাজনৈতিক বিষয়ে বক্তব্য, মতামত দেওয়ার অধিকার দমন করার সবচেয়ে বড় হাতিয়ার বুয়েট প্রশাসনের হাতে তুলে দেওয়া হলো।
সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, ক্যাম্পাসে দখলদারিত্ব এবং সন্ত্রাসের রাজনীতি করে ছাত্রলীগ। তাই সব সংগঠনের রাজনীতি বন্ধ না করে ছাত্রলীগের কর্তৃত্ববাদী রাজনীতি বন্ধ করা দরকার ছিল। ক্যাম্পাসগুলোতে যদি অপরাজনীতি বন্ধ করা না হয়, তাহলে রাজনীতি নিষিদ্ধের মধ্যে দিয়ে খুনি উৎপাদন বন্ধ হবে না।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি মেহেদী হাসান নোবেল, সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্টের মাসুদ রানা, সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দীন, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রীর সভাপতি ইকবাল কবীরসহ অন্যরা। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]