• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » সাভারকারের ভারতরত পুরস্কার প্রাপ্য নয়, তিনি ব্রিটিশদের কাছে ক্ষমা ভিক্ষা চেয়েছিলেন, জানালেন অপর্ণা সেন


সাভারকারের ভারতরত পুরস্কার প্রাপ্য নয়, তিনি ব্রিটিশদের কাছে ক্ষমা ভিক্ষা চেয়েছিলেন, জানালেন অপর্ণা সেন

আমাদের নতুন সময় : 19/10/2019


দেবদুলাল মুন্না : এবছরই ভারতরতœ পুরস্কার দেওয়া হবে। কিছুদিন আগে বিজেপির পক্ষ থেকে জানানো হয়, সাভারকরকে মরণোত্তর ভারতরতœ দেওয়া হবে। এটি তাদের নির্বাচনী ইশতেহারেও ছিল। এ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে নানা মহলে। কংগ্রেস সঙ্গে সঙ্গে এর তীব্র প্রতিবাদ করেছিল। কংগ্রেস নেতারা মনে করেন, গান্ধী হত্যাকারী নাথুরাম গডসে সাভারকরের মতাদর্শে প্রভাবিত হয়েছিলেন। গত বুধবার কংগেসের মুখপাত্র মণীশ তেওয়ারি বলেন, ‘মহাত্মা গান্ধীকে হত্যার ষড়যন্ত্রে সাভারকর অভিযুক্ত ছিলেন, তাই তাকে ভারতরতœ পুরস্কার দেওয়া যাবে না।’ এরপর দিন লেখক সমরেশ মজুমদার বলেন, ‘ সাভারকারকে ভারতরতœ পুরস্কার দেওয়া হলে ভারতীয় দেশপ্রেমিকদের অশ্রদ্ধা করা হয়।’ গতকাল শুক্রবার অভিনেত্রী অপর্ণা সেন সাভারকার বিতর্কে কথা বললেন।
টুইটারে তিনি প্রশ্ন করেছেন,‘সাভারকরকে কি মরণোত্তর ভারতরতœ দেওয়া হবে? তিনি কি সেলুলার জেল থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য ব্রিটিশের কাছে ক্ষমা ভিক্ষা চাননি? ক্ষমা চেয়ে কি তিনি চারটি চিঠি লেখেননি? আমি কি ইতিহাস ভুল জানি? আমি শুধু জিজ্ঞাসা করছি। ’ এর আগে গোরক্ষার নামে মানুষকে পিটিয়ে মারার বিরুদ্ধে সরব হয়েছিলেন অপর্ণা। কয়েকজন বুদ্ধিজীবীর সঙ্গে যৌথভাবে প্রধানমন্ত্রীকে খোলা চিঠিও পাঠিয়েছিলেন। এরপর সাভারকর নিয়ে তিনি যে প্রশ্ন তুলেছেন, তাতে নতুন করে বিতর্ক সৃষ্টি হবে বলে অনেকে মনে করছেন। অপর্না সেন জি নিউজকে গতকাল বলেন, ‘ সাভারকরকে ভারতরতœ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং-ও। সাভারকর যে মতাদর্শ প্রচার করেছিলেন, তাতে তাঁকে ভারতরতœ পুরস্কারের উপযুক্ত বলে বিবেচনা করা যায় না। যদিও আমরা জানি, সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও কংগ্রেস নেত্রী ইন্দিরা গান্ধী সাভারকরজির সম্মানে স্ট্যাম্প প্রকাশ করেছিলেন। ওইটুকু যথেষ্ঠ ছিল। কিন্তু ভারতরতœ পুরস্কার কেন দেওয়া হবে ? এতে হিন্দুত্ববাদী সন্ত্রাসবাদকে প্রশ্রয় দেয়া হবে। ব্যক্তি হিসাবে সাভারকরের বিরুদ্ধে আমাদের কিছু বলার নেই। কিন্তু তিনি যে হিন্দুত্ববাদী মতাদর্শ প্রচার করতেন, আমরা তার বিরোধী।’ সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]