সারাদেশে বৃষ্টি থাকলেও শিগগিরই আসছে না শীত

আমাদের নতুন সময় : 27/10/2019


তাপসী রাবেয়া : বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তর আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলছে,লঘুচাপে সৃষ্ট মেঘমালার কারনে টানা চারদিনের বৃষ্টিপাতের পর বাংলাদেশ থেকে বিদায় নিয়েছে মৌসুমী বায়ু।মাসের শুরুতেই বলা হয়েছিলো পুরো অক্টোবর জুড়েই থাকবে বৃষ্টি। আর নভেম্বরের শুরু থেকে কমবে সূর্যের প্রখরতা। কমবে তাপ প্রবাহ।
আবহাওয়াবিদ আবদুর রহমান বলেন, ‘ঢাকার আকাশে শনিবার বৃষ্টির সঙ্গে স্বল্পমাত্রার বজ্রপাতও হতে পারে। তবে রোববার সকাল থেকেই রাজধানীর আকাশ থাকবে ঝকঝকে পরিষ্কার।’ এরপর এক সপ্তাহ পর্যন্ত বৃষ্টির কোনো সম্ভাবনা দেখছেন না তিনি। তিনি বলেন, শনিবার ৬টা থেকে পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রাজশাহী, রংপুর, খুলনা, বরিশাল, ঢাকা, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি ও বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী বৃষ্টি হতে পারে। পূর্বাভাসে আরও বলা হয়, আগামী ৪৮ ঘণ্টায় দেশের আবহাওয়ার উল্লেখ্যযোগ্য পরিবর্তন নেই। তার পরবর্তী পাঁচ দিনে বৃষ্টিপাতের প্রবণতা কমতে পারে।
এদফার লঘুচাপে দেশে সর্বোচ্চ বৃষ্টি হয়েছে সিরাজগঞ্জের তাড়াশে ৪৪ মিলিমিটার। সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিলো ৩৪ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং সর্বনিম্ন ছিলো নিকলিতে ২০ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। সমুদ্র বন্দরগুলোর জন্য নেই কোনো সতর্কতা, ভারী বর্ষণের কোনো সম্ভাবনাও নেই তবে অভ্যন্তরীণ নদীবন্দরগুলোর জন্য।
এই আবহাওয়াবিদ আরো জানান, এবছর রংপুর,পঞ্চগড়,ঠাকুরগাঁও অঞ্চলে এখনই তাপমাত্রা কমে গেছে। তবে ব্যাপক আকারে সারাদেশে এই শীত বাড়বে না বলেও জানান তিনি। সম্পাদনা : খালিদ আহমেদ




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]