শ্রেষ্ঠ অভিনেতা নায়ক ফেরদৌস, শাকিব শুভ ও সাইমন; অভিনেত্রী জয়া ও তিশা

আমাদের নতুন সময় : 07/11/2019

ইমরুল শাহেদ : ২০১৭ ও ২০১৮ সালের জন্য জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারের গেজেট প্রকাশ করা হয়েছে। গতকাল তথ্য মন্ত্রণালয় এই গেজেট প্রকাশ করে। প্রকাশিত গেজেট অনুসারে এবার ২৮টি বিভাগে পুরস্কার দেওয়া হচ্ছে। ২০১৭ সালের জন্য শ্রেষ্ঠ ছবি নির্বাচিত হয়েছে ঢাকা অ্যাটাক। এই ছবিতে অভিনয়ের জন্য আরিফিন শুভ এবং সত্তা ছবিতে অভিনয়ের জন্য শাকিব খান পুরস্কার জিতেছেন। এ বছর শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার পেয়েছেন হালদা ছবিতে অভিনয়ের জন্য নুসরাত ইমরোজ তিশা। ২০১৮ সালে শ্রেষ্ঠ ছবি হিসেবে পুরস্কার পেয়েছে পুত্র। এই ছবিটিতে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছেন ফেরদৌস। একইসঙ্গে জান্নাত ছবিতে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেতার পুরস্কার পেয়েছেন সাইমন। দেবী ছবিতে অভিনয়ের জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর পুরস্কার পেয়েছেন জয়া আহসান। ২০১৮ সালে ‘কমলা রকেট’ ছবিতে অভিনয় করে সেরা কৌতুক অভিনেতা হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন মোশাররফ করিম।
২০১৭ সালে ‘গহীন বালুচর’ সিনেমার পরিচালক বদরুল আনাম সৌদ এবং ২০১৮ সালের সেরা পরিচালকের পুরস্কার পেয়েছেন ‘জান্নাত’ সিনেমার পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান মানিক। ২০১৭ সালে শ্রেষ্ঠ গায়ক হলেন জেমস (সত্তা), একই ছবির জন্য সেরা গায়িকা হয়েছেন মমতাজ। একই ছবির জন্য শ্রেষ্ঠ গীতিকার সেজুল হোসেন ও শ্রেষ্ঠ সুরকার হলেন বাপ্পা মজুমদার।
২০১৮ সালে শ্রেষ্ঠ গায়ক হলেন রাতুল (পুত্র), শ্রেষ্ঠ গায়িকা যৌথভাবে সাবিনা ইয়াসমিন (পুত্র) ও আঁখি আলমগীর (একটি সিনেমার গল্প)। যৌথভাবে শ্রেষ্ঠ গীতিকার পেলেন জুলফিকার রাসেল (পুত্র) ও কবির বকুল (নায়ক)। শ্রেষ্ঠ সুরকার রুনা লায়লা (একটি সিনোমর গল্প)।
১৩ সদস্য বিশিষ্ট জুরি বোর্ডে তথ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিবকে (প্রশাসন ও চলচ্চিত্র) সভাপতি করা হয়েছে। বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান, সদস্য-সচিব হিসেবে এবং বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন কর্পোরেশনের ব্যবস্থাপনা পরিচালক, তথ্য মন্ত্রণালয়ের যুগ্মসচিব (চলচ্চিত্র) ও বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের মহাপরিচালক সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।
এছাড়া ২০১৭ সালের জুরি বোর্ডের অন্য সদস্যরা হলেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিপার্টমেন্ট অব টেলিভিশন ফিল্ম অ্যান্ড ফটোগ্রাফির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শফিউল আলম ভূঁইয়া, একুশে টেলিভিশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মনজুরুল আহসান বুলবুল, চলচ্চিত্র অভিনেত্রী কোহিনুর আক্তার সুচন্দা, চলচ্চিত্র অভিনেতা ও প্রযোজক এম এ আলমগীর, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার, চিত্রগ্রাহক পংকজ পালিত ও সংগীত পরিচালক সুজেয় শ্যাম।
২০১৮ সালের জুরি বোর্ডের অন্য সদস্যরা হলেন- ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিপার্টমেন্ট অব টেলিভিশন ফিল্ম অ্যান্ড ফটোগ্রাফির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শফিউল আলম ভূঁইয়া, চলচ্চিত্র অভিনেতা ড. এনামুল হক, সংগীতশিল্পী ফকির আলমগীর, দৈনিক ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত, গীতিকার ও সংগীত পরিচালক হাসান মতিউর রহমান, অভিনেত্রী রওশন আরা রোজিনা, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সমিতির সভাপতি মুশফিকুর রহমান গুলজার ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র গ্রাহক সংস্থার যুগ্ম-মহাসচিব তপন আহমেদ।
আগামী ৮ ডিসেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেবেন। সম্পাদনা : ভিক্টর কে. রোজারিও




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]