ভারতীয় গুপ্তচরকে সুবিধা দিতে সামরিক আইন সংশোধন করছে পাকিস্তান

আমাদের নতুন সময় : 13/11/2019

আসিফুজ্জামান পৃথিল : আইন পরিবর্তিত হলে বেসরকারি আদালতে বিচারিক সুবিধা পাবেন কথিত গুপ্তচর কুলভূষণ যাদব। বর্তমানে ভারতীয় নৌবাহিনীর সাবেক এই কর্মকর্তা পাকিস্তানি কারাগারে মৃত্যুদ-ের প্রহর গুনছেন। গতকাল বুধবার একথা জানানো হয়েছে।
বর্তমান আইন অনুযায়ী কুলভূষণের আবেদন করার সুযোগও নেই। ৪৯ বছর বয়সী কুলভূষণ যাদবকে ২০১৭ সালে গুপ্তচরবৃত্তি ও সন্ত্রাসবাদের সঙ্গে যুক্ত থাকার অভিযোগে মৃত্যুদ- দেয় পাকিস্তানের আদালত। আন্তর্জাতিক বিচার আদালতের নির্দেশে জুলাই মাসে ভারতকে কনস্যুলার অ্যাকসেস দেয় পাকিস্তান। এসময় কুলভূষণের মৃত্যুদ-ের রায়কে পুনর্বিবেচনা করার কথা বলে আদালতটি। পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যমের উদ্ধৃতি দিয়ে ভারতীয় সংবাদ সংস্থা এএনআই জানায়, ‘পাকিস্তান আন্তর্জাতিক ন্যায়বিচার আদালতের সঙ্গে সহযোগিতা করতে সেনা আইন পরিবর্তন করে কুলভূষণ যাদবকে নাগরিক আদালতে আবেদন করার অধিকার দেবে। এই মামলাটির বিচার সেনা আদালতে হয়েছে। এবং সেনা আইন অনুযায়ী এই ধরনের ব্যক্তি বা গোষ্ঠীর ক্ষেত্রে আবেদনের সুযোগ দেয়া হয় না। কিন্তু এতে বিশেষ সংশোধন করা হবে কুলভূষণ যাদবের জন্য।’
পাকিস্তানের দাবি, বাললুচস্তান থেকে কুলভূষণকে গেপ্তার করা হয় ২০১৬ সালের ৩ মার্চ। এবং তিনি একটি আক্রমণের পরিকল্পনা করছিলেন। ভারত জানিয়েছে, পাকিস্তানের সেনাবাহিনী কুলভূষণকে অপহরণ করে ইরান থেকে। সেখানে তিনি ব্যবসা করতেন। এরপর পাকিস্তান কুলভূষণের বিরুদ্ধে মিথ্যে অভিযোগ আনে গুপ্তচরবৃত্তি ও জঙ্গি কার্যকলাপে যুক্ত থাকার। সম্পাদনা : খালিদ আহমেদ




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]