• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » পরিবেশ অধিদফতরের সাবেক এডিজি মুক্তিযোদ্ধা প্রমাণে ব্যর্থ ফেরত দিতে হবে ৯ লাখ টাকা


পরিবেশ অধিদফতরের সাবেক এডিজি মুক্তিযোদ্ধা প্রমাণে ব্যর্থ ফেরত দিতে হবে ৯ লাখ টাকা

আমাদের নতুন সময় : 14/11/2019

শিমুল মাহমুদ : মুক্তিযোদ্ধা প্রমাণে ব্যর্থ হওয়ায় অতিরিক্ত সময়ে চাকরিকালীন বেতন-ভাতা ফেরত দিতে হচ্ছে পরিবেশ অধিদফতরের সাবেক অতিরিক্ত মহাপরিচালক মো. আবদুস সোবহানকে। আটকে গেছে তার পেনশনের টাকাও। স্বাভাবিকভাবে আবদুস সোবহানের অবসরে যাওয়ার দিন ছিল ২০১০ সালের ১৪ জুন। তবে তিনি চাকরিতে বহাল ছিলেন ২০১১ সালের ৩১ মে পর্যন্ত। সে হিসাবে মন্ত্রণালয় থেকে অতিরিক্ত বেতন-ভাতা নিয়েছেন ৯ লাখ ২ হাজার ৮৬৪ টাকা।
এ বিষয়ে আবদুস সোবহান দাবি করেন, তিনি একজন প্রকৃত মুক্তিযোদ্ধা। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় এখনও তার মুক্তিযোদ্ধা সনদ বাতিল করে গেজেট প্রকাশ করেনি।
বৃহস্পতিবার যুগান্তরের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, অভিযুক্ত এ কর্মকর্তা পেনশন সুবিধাদি নিষ্পত্তি করতে মন্ত্রণালয় থেকে পরিবেশ অধিদফতরের ডিজিকে চিঠি দেয়া হয় ২৯ আগস্ট। পরে ২৯ সেপ্টেম্বর আবদুস সোবহান পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের সচিবের কাছে এক চিঠি দেন। সেখানে তিনি লাম্প গ্রান্ট থেকে আংশিক অর্থ না কেটে আনুতোষিক হতে কেটে নিয়ে বিষয়টি নিষ্পত্তির অনুরোধ জানান।
তথ্যানুন্ধানে আরও জানা গেছে, ২০১১ সালের ১২ সেপ্টেম্বর মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় আবদুস সোবহানের মুক্তিযোদ্ধা সনদ বাতিল করে গেজেটও প্রকাশ করে। মন্ত্রণালয়ের উপসচিব এসএম এনামুল কবির স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থার প্রতিবেদনের ভিত্তিতে চাঁদপুরের সদর উপজেলার কামরাঙ্গা গ্রামের মৃত মাওলানা সেকেন্দার আহমেদের ছেলে আবদুস সোবহানের অনুকূলে দেয়া জামুকার গেজেট (তাং ২২-০৭-১০, ক্রমিক নম্বর-২৯৫৩) এবং মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সাময়িক সনদ (সনদ নম্বর-ম-১৫৮২৩৩, তাং ২০-১০-২০১০) বাতিল করা হল।
মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে এই প্রজ্ঞাপনের কপি পাওয়ার পর পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে পরিবেশ অধিদফতর তার বিরুদ্ধে পরবর্তী দাপ্তরিক প্রক্রিয়া শুরু করে। এর আগে জাল-জালিয়াতির বিষয়টি জানাজানি হয়ে যায় এবং কর্তৃপক্ষের নির্দেশে তিনি অফিসে আসা বন্ধ করে দেন। সম্পাদনা : রমাপ্রসাদ বাবু




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]