• প্রচ্ছদ » » উনিশ সালে একশ তিরিশটা গান গাওয়ার পরিকল্পনা আসিফ আকবরের, গেয়েছেন নব্বইয়ের মতো


উনিশ সালে একশ তিরিশটা গান গাওয়ার পরিকল্পনা আসিফ আকবরের, গেয়েছেন নব্বইয়ের মতো

আমাদের নতুন সময় : 15/11/2019

ফেসবুক স্ট্যাটাসে জানিয়েছেন শিল্পী আসিফ আকবর নিজেই। তিনি লিখেছেন, আনকাট সেন্সর পেয়েছে গহীনের গান। একশ তিরিশটা গান গাওয়ার প্ল্যান ছিলো এ বছর, নব্বইটির মতো গাওয়া শেষ। আরও প্রায় পঁয়তাল্লিশটা গান ভয়েস দেবার অপেক্ষায়। এর মধ্যে ইসলামী গান গাওয়ার জন্য নিজেকে মানসিকভাবে প্রস্তুত করেছি। একশ দশটা হামদ এবং না’ত গাইতে হবে আগামী তিন মাসের মধ্যে। কথা দিয়ে দিয়েছি গাইবো, সাধ্যমতো চেষ্টা করছি সহীভাবে গাওয়ার জন্য। সুস্থ যদি থাকি ইনশাআল্লাহ কথার বরখেলাপ হবে না। কারণ জীবন আর জবান আমার কাছে সমান্তরাল শব্দ। শুটিং থেকে মুক্তি দিয়ে আমাকে ধন্য করেছেন লগ্নীকারী প্রযোজকরা। আর হয়তো তিনটা গানের শুট করতেই হবে, না হলে কিছু মন ভেঙে যাবে। আমার বেশিরভাগ জনপ্রিয় অ্যালবাম মুক্তি পেয়েছে শনিবার কিংবা তেরো তারিখ। শনি আমার জন্মবার, তেরো আমার প্রিয় লাকী তারিখ, কুসংস্কারকে আগেই সংস্কার করেছি। তেরো তারিখ সিআইডি মামলার চার্জশিট দিয়ে আমার নিজস্ব স্টাইলের ধারাবাহিকতা রক্ষা করলো, তাদের ধন্যবাদ। আমিই মনে হয় পৃথিবীর উল্লেখযোগ্য আসামি, যে নিজের মামলার দ্রত চার্জশিটের জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষায় ছিলাম। কারণ চার্জশিট ছাড়া আমিও আমার তরফে আইনি প্রক্রিয়ায় ঢুকতে পারছিলাম না, আমার আইনজীবীরা তারিখের পর তারিখ চাননি মাননীয় আদালতের কাছে। এখন চাই দ্রæত বিচারকার্য শুরু এবং শেষ হোক, আমিও রায়ের অপেক্ষায় থাকবো। এ শহরের কোনো বালুকণা জানে না আমিও ধূলিকণা হয়ে একদিন তাদের সঙ্গে হাওয়ায় উড়ে বেড়াতাম, কখনো কাদা হয়ে আবারও শুকিয়ে খটখটা হতাম। তারপর আর উড়িনি, কাদাও হইনি, অনেক ধূলিকণা জমে পাথর হয়ে গেছি। গায়ে গতরে বড় হওয়ায় সবার নজরে এসেছি, সেই পাথরে একটা ক্যাকটাস ফুল ফুটেছে, নাম আসিফ আকবর। পাথর নিজের শরীরের শ্যাওলাকে পরিষ্কার করার সক্ষমতা রাখে না, তাই পিচ্ছিল পাথরে মানুষ আহত হয়। আমাকে যারা ভালোবাসেন তারা আহত হয়েছেন এসব মামলা মোকদ্দমায়, ছুড়ে ফেলে দেননি আমায়। আমিও কথা দিচ্ছিÑ সুরকার গীতিকারদের টাকা আমি মেরে দিইনি, তারা সাতবার পুনর্জন্ম নিলেও প্রমাণ করতে পারবে না। সুতরাং ধৈর্য ধরুন, শান্ত থাকুন, কোনো রকম অস্থিরতা প্রদর্শন না করে আমাকে কৃতজ্ঞতাপাশে আবদ্ধ রাখুন। ফেসবুক থেকে




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]