• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে মার্কিন কংগ্রেসের শুনানিতে আবারও উদ্বেগ প্রকাশ, পদক্ষেপ নেয়ার সুপারিশ


কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে মার্কিন কংগ্রেসের শুনানিতে আবারও উদ্বেগ প্রকাশ, পদক্ষেপ নেয়ার সুপারিশ

আমাদের নতুন সময় : 16/11/2019

 

ইমরুল শাহেদ : ভারতশাসিত কাশ্মীরে মানবাধিকার লংঘনের কারণে সেখানে যে গুমোট পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে, শুনানিতে সাক্ষীরা এ কথাই বললেন। তারা কাশ্মীরের সার্বিক পরিস্থিতি পর্যালোচনার পর কংগ্রেসের পদক্ষেপ চেয়েছেন। এর আগে গত ২২ অক্টোবর এ ধরনের আরও একটি শুনানি হয়। টম ল্যান্টস হিউম্যান রাইটস কমিশনের ওয়েবসাইটে এক বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ইতিহাসের আলোকে এই দ্বিদলীয় কমিশনে কাশ্মীর পরিস্থিতি নিয়ে বৃহস্পতিবার শুনানি হয়। কেএমএসনিউজ
গত ৫ আগস্ট ভারতের সংবিধানের ৩৭০ অধ্যায় বাতিল করে জম্মু ও কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা খর্ব করা হয়। একইসঙ্গে জম্মু ও কাশ্মীর এবং লাদাখকে দুটি পৃথক অঞ্চল হিসেবে কেন্দ্রীয় শাসনের অন্তর্ভুক্ত করা হয়। এই দু’টি অঞ্চলে ইউনিয়ন টেরিটরি হিসেবে কার্যক্রম শুরু হয় ৩১ অক্টোবর, বল্লভ ভাই প্যাটেলের জন্মদিনে। ৫ আগস্ট থেকেই দুটি অঞ্চলই সেনাবাহিনীর তদারকিতে রয়েছে এবং দুটি অঞ্চলেরই যোগাযোগ ব্যবস্থা বিচ্ছিন্ন রয়েছে।
শুনানিতে ভারতীয় বংশোদ্ভূত মার্কিন কংগ্রেসওম্যান প্রমিলা জয়াপাল কাশ্মীরে ভারত সরকারের কার্যক্রমে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বক্তব্য দিয়েছেন। এই ডেমোক্র্যাট বলেছেন, ‘সেখানে বিনা অভিযোগে লোকদের আটক করা হচ্ছে, যোগাযোগ ব্যবস্থাও একেবারেই সীমিত এবং কাউকে সেখানে যেতে দেওয়া হচ্ছে না। সুসম্পর্কের জন্য এটা আমাদের কাছে একেবারেই বেদনাদায়ক এবং সংকটজনক।’
একই অভিমত ব্যক্ত করেছেন ডেমোক্র্যাট সদস্য শেইলা জ্যাকসন লি, ডেভিড ট্রোন এবং ডেভিড সিসিলাইন। তারা ভারতের কাশ্মীরে নেয়া ব্যবস্থার কঠোর সমালোচক। ইন্টারন্যাশনাল রিলিজিয়াস ফ্রিডমের মার্কিন কমিশনের কমিশনার অরুণিমা বারগাভা বলেন, মুসলিম সম্প্রদায়ের মানবাধিকার খর্ব করা হয়েছে। তিনি বলেন, ‘পুরো ভারত জুড়ে রাজনৈতিক ও সম্প্রদায়ের কর্ণধাররা এমন একটা আদর্শের কথা বলছেন, যা ভারতকে স্বাভাবিক নিয়মেই হিন্দু রাষ্ট্রে পরিণত করবে। ভারতের সংখ্যালঘুরা যেন দ্বিতীয় শ্রেণীর নাগরিক বা বিদেশি।’ শুনানিতে এভাবেই তিনি বক্তব্য তুলে ধরেন।
তিনি আরো বলেন, ‘ভারতের ধর্মীয় সংখ্যালঘুরা এখন প্রস্তর খ-ের ওপর দাঁড়িয়ে আছে। ভারত সরকারের দমন-পীড়ন যদি এভাবে অব্যাহত থাকে, তাহলে তাদের বেঁচে থাকা, অধিকার এবং স্বাধীনতা সব কিছুই হুমকির মধ্যে পড়বে।’ সম্পাদনা : সালেহ্ বিপ্লব




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]