• প্রচ্ছদ » শেষ পাতা » ছয় মাসের ব্যবধানে ইউএনওদের জন্যে জিপের দাম বাড়লো সাড়ে ৪ লাখ বেশি


ছয় মাসের ব্যবধানে ইউএনওদের জন্যে জিপের দাম বাড়লো সাড়ে ৪ লাখ বেশি

আমাদের নতুন সময় : 19/11/2019

বিশেষ প্রতিনিধি : মাঠপ্রশাসন কর্মকর্তাদের জ­ন্য বিলাসবহুল জিপ গাড়ি কেনা হচ্ছে ২০১৮-১৯ অর্থ বছর থেকে। চলতি অর্থ বছরে নতুন করে আবার কেনা হবে। তবে ছয় মাসের ব্যবধানে প্রতিটি জিপের দাম সাড়ে ৪ লাখ টাকা বেশি ধরা হয়েছে। মাঠপ্রশাসনের কর্মকর্তারা উপজেলা নির্বাহী অফিসারদের (ইউএনও) জন্য স্পোর্টস কিউ এক্স মডেলের জিপ কেনা হচ্ছে। যার প্রতিটি জিপের দাম ৯৫ লাখ টাকা। ১০০টি গাড়ি কেনার জন্য বরাদ্দ ৯৫ কোটি টাকা।
সূত্র জানায়, গত ২০১৮-১৯ অর্থ বছরে একই মডেলের গাড়ি কেনা হয়েছে ৯০ লাখ টাকা। মাত্র ছয় মাসের ব্যবধানে গাড়ির দাম সাড়ে ৪ লাখ টাকা বেশি দেখানো হচ্ছে। এবং এই বরাদ্দ অনুমোদন দেয়ার জন্য বার বার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে চিঠি দেয়া হচ্ছে অর্থ মন্ত্রণালয়ে। গতমাসের শেষের দিকেও এই অর্থের অনুমোদন চেয়ে চিঠি দেয়া হয়েছে।
জানা গেছে, ২০১৮-১৯ অর্থ বছরে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় থেকে ৬৬টি স্পোর্টস কিউ এক্স মডেলের জিপ কেনা হয়েছে। তখন প্রতিটি গাড়ি কেনা হয়েছিল ৯০ লাখ ৩১ হাজার ৬০০ টাকায়। আর নতুন করে ১০০ গাড়ি কেনার জন্য প্রতিটির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে ৯৪ লাখ ৭৯ হাজার ৬০০ টাকা।
এ বিষয়ে পরিবহন কমিশনের অতিরিক্ত সচিব মো. মিজানুর রহমান বলেন, দশম সংসদের জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির ২৯তম বৈঠকে ইউএনওদের জন্য জিপ গাড়ি কেনার নির্দেশনা দেওয়া হয়। ফলে তাদের জন্য প্রত্যন্ত অঞ্চলে যাতায়াত উপযোগী জিপ গাড়ি কেনা হচ্ছে।
চলতি ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে সরকারি যানবাহন অধিদফতরে একশ’ কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে। মূলত সরকারের প্রয়োজনে মোটরযান ক্রয় করতে এ অর্থ বরাদ্দ দেয়া হয়। এখান থেকেই জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ইউএনওদের জন্য ১০০টি জিপ গাড়ি কেনার জন্য ৯৪ কোটি ৭৯ লাখ ৬০ হাজার টাকা বরাদ্দ চাচ্ছে।
জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানান, নতুন গাড়ি উন্মুক্ত দর পদ্ধতিতে ক্রয় প্রক্রিয়া শেষ করতে দীর্ঘ সময় প্রয়োজন। এ প্রক্রিয়ায় চলতি অর্থবছরের অবশিষ্ট সময়ের মধ্যে ১০০টি গাড়ি কেনা সম্ভব হবে না। এই অবস্থায় উন্মুক্ত দর পদ্ধতির বদলে সরাসরি ক্রয় পদ্ধতিতে গাড়ি কেনার সুযোগ অনুমোদিত বাৎসরিক ক্রয় পরিকল্পনায় অন্তর্ভুক্ত রয়েছে।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]