কক্সবাজারের সৈকতে ঢাক-ঢোল আর পুং বাজিয়ে উৎসব শুরু

আমাদের নতুন সময় : 22/11/2019


শিমুল মাহমুদ : এদেশের সমুদ্র সৈকতের সৌন্দর্যের সঙ্গে সাংস্কৃতিক পর্যটনের মেলবন্ধন রচনা করতেই এই আয়োজন। সৈকতের বালুতে মঞ্চ আর সাগরের হাওয়ায় উড়ছিলো রঙিন পতাকাগুলো। মণিপুরী শিল্পীদের ঐতিহ্যিক বাদ্যযন্ত্র পুংয়ের (শাঁখ) তালে শুক্রবার সকালের জড়তা কাটে একদল মানুষের। দলবল নিয়ে পুং বাজিয়ে উৎসব শুরু করেন তারা। বাংলার ঢুলিরাও যোগ দেন তাদের সঙ্গে। বাদ যায়নি তরুণ নৃত্যশিল্পীদের সমবেত নৃত্যও। ম উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ডব্লিউডিএ, এপির সভাপতি ঊর্মিমালা সরকার বলেন, আমাদের অনেক দিনের শ্রম ও সাধনার ফসল এই উৎসব। বাংলাদেশে বার্ষিক সভা করার পাশাপাশি এ উৎসবের আয়োজন করতে পারাটা আমাদের জন্য একাধারে আনন্দের এবং গর্বের। দূর দূরান্ত থেকে এসে আমাদের এই উৎসবে যোগ দেওয়ার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন ডবিউøডিএ, এপির সহসভাপতি লুবনা মারিয়াম, সাবেক সভাপতি তাইওয়ানের ইউনি ওয়াং এবং ডব্লিউডিএ ও এপির বাংলাদেশ শাখা নৃত্যযোগের সভাপতি আনিসুল ইসলাম হিরু। এ সময় উপস্থিত ছিলেন ওশান ড্যান্স ফেস্টিভ্যালের নির্বাহী কমিটির সদস্য লায়লা হাসান, বেলায়েত হোসেন খান, সোমা মমতাজ, মুনমুন আহমেদ, তাবাসসুম আহমেদ ও তামান্না রহমান। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে পুং বাজায় সিলেট থেকে আসা মণিপুরী দল, ঢোল বাজায় বাংলার ঢোল এবং নৃত্য পরিবেশন করে নাঈম খান ড্যান্স কোম্পানি।
কক্সবাজারের অবকাশযাপন কেন্দ্র মারমেইড ইকো রিসোর্টে চারদিনের আন্তর্জাতিক দ্বিবার্ষিক-বার্ষিক নৃত্য উৎসব ‘ওশান ড্যান্স ফেস্টিভ্যাল ২০১৯’। ওয়ার্ল্ড ড্যান্স অ্যালায়েন্স, এশিয়া প্যাসিফিকের (ডব্লিউডিএ, এপি) বাংলাদেশ শাখা নৃত্যযোগ প্রথমবারের মতো দেশে আয়োজন করেছে আন্তর্জাতিক এই নৃত্য উৎসব। সম্পাদনা ; ভিক্টর কে. রোজারিও




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]