নৌ সেক্টরে চাঁদাবাজি বন্ধের দাবী কার্গো ভেসেল মালিকদের

আমাদের নতুন সময় : 01/12/2019

ইসমাঈল ইমু : গতকাল দুপুরে রাজধানীর একটি হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে নৌ পরিবহন ধর্মঘটকে অবৈধ অযৌক্তিক উল্লেখ করে ছয় দফা দাবী পেশ করে বাংলাদেশ কার্গো ভেসেল ওনার্স অ্যাসোসিয়েশন। সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মো. নূরুল হক বলেন, শ্রমিকদের আহুত নৌ ধর্মঘট অবৈধ সেটা বন্ধ করতে হবে। শ্রমিকদের বিভিন্ন সংগঠন যার যার মতো করে দাবী দাওয়া উপস্থাপন করে। সংগঠনগুলোর মধ্যে কারা সিবিএ সেটা নির্ধারিত না থাকায় তাদের সঙ্গে কোন আলোচনায় ফলপ্রসু হয় না, তাই দ্রুত সিবিএ নির্ধারণ করতে হবে। বন্দরে বন্দরে এসব সংগঠনের নেতারা গেজেট বহির্ভূত বেতন-ভাতা দাবি করে তা আদায়ের নামে নৌযান মালিকদের জিম্মি করে, মনগড়া বেতন-ভাতার নামে নৌযান আটক বন্ধ করতে হবে। চট্টগ্রামের আউটার থেকে অবৈধ বাল্কহেডের চলাচল বন্ধ করতে হবে। মাদার ভেসেল থেকে সিরিয়াল অনুযায়ী পণ্য চলাচলে বাধ্যবাধকতা আরোপ করতে হবে। যেসব নৌপথ ড্রেজিংয়ের অভাবে নৌযান চলাচলে বিঘœ হয় সেগুলো ড্রেজিংয়ের ব্যবস্থা করতে হবে।
তিনি আরও বলেন, আদালতের রায়ে নৌযান শ্রমিকদের ধর্মঘটে নিষেধাজ্ঞা দেয়া আছে। এরপরও তারা কীভাবে ধর্মঘট করছে। ২০১৬ সালে সরকার নৌযান শ্রমিকদের বেতনভাতা ১৩০ শতাংশ বাড়িয়েছে। অথচ শাহ আলম ও শফিকুল আলম পটল চাঁদাবাজির জন্য নৈরাজ্য সৃষ্টি করে তথাকথিত ১১ দফা দাবীর নামে আগেও তিনবার ধর্মঘট করেছে আবারও ধর্মঘট ডেকে নৌ সেক্টরকে অস্থির করছে। তারা বিভিন্নস্থানে নৌযান আটকে রেখে চাঁদাবাজি করছে। কার্গো ভেসেল এসোয়েশন এর প্রতিকার দাবী করছে। সাংবাদিক সম্মেলনে সংগঠনের কার্যনির্বাহী কমিটির অন্যান্য নেতারা উপস্থিত ছিলেন। সম্পাদসা : খালিদ আহমেদ




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]