• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » শাহজালালে ৪০ বছর পর আসছে নতুন রাডার প্রস্তাবিত ২১৭৫ কোটির রাডার কেনা হচ্ছে ৬৫০ কোটিতে


শাহজালালে ৪০ বছর পর আসছে নতুন রাডার প্রস্তাবিত ২১৭৫ কোটির রাডার কেনা হচ্ছে ৬৫০ কোটিতে

আমাদের নতুন সময় : 02/12/2019

 

লাইজুল ইসলাম : হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ১৯৮০ সালে নতুন রাডার বসানো হয়। এরপর এটি রিপিয়ার করা হলেও নতুন করে কেনা হয়নি। গত ৪০ বছর ধরেই শাহজালাল চলছে এই রাডার দিয়ে। সরকার নতুন রাডার ও এয়ারক্র্যাফট ট্রাফিক কন্ট্রোল সিস্টেম কেনার সিদ্ধান্ত নেয়।
তারই ধারবাহিকতায় ২১৭৫ কোটি টাকার একটি প্রকল্প হাতে নেয়া হয়। পিপিপির আওতায় ওই প্রস্তাবনায় রাডার ও যন্ত্রপাতি আনার কথা বলা হয়। কিন্তু অস্বাভাবিক মূল্যের বিষয়ে একনেকে তা অনুমোদিত হয়নি। যার ফলে সরকার জিটুজি (সরকারি ব্যবস্থাপনায়) পদ্ধতিতে এই রাডার আনতে যাচ্ছে। সূত্র বলছে, ২১৭৫ কোটি টাকার জায়গায় মাত্র ৬৫০ কোটি টাকায় এই রাডারটি আনতে যাচ্ছে সরকার।
এ বিষয়ে বেসামরিক বিমান ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী বলেন, ফ্রান্সের প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান থ্যালেসের কাছ থেকে আনা হচ্ছে রাডার। শাহজালালের পুরোনো রাডারটিও থ্যালেসের কাছ থেকেই আনা হয়েছিলো। থ্যালেস দেশের প্রথম স্যাটেলাইট বঙ্গবন্ধু-১ এর নির্মাতা প্রতিষ্ঠান।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, সরকার শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ব্যাপক উন্নয়ন করছে। সরাসরি সকরকারি ব্যবস্থাপনায় এটি কেনা হচ্ছে। নতুন এ রাডার কিনতে খরচ পড়ছে ৬৫০ কোটি টাকা, যা কিনা এর আগের প্রস্তাবের চেয়ে ১৫০০ কোটি টাকা কম।
তিনি বলেন, দেশের প্রধান বিমানবন্দরটি থেকে প্রতিদিন ২০০ ফ্লাইট ওঠানামা করে থাকে। আকাশপথে যাত্রী সংখ্যা বাড়ার কারণে দিনে দিনে ফ্লাইট সংখ্যাও বাড়ছে। তাই শাহজালালের বিমান ট্রাফিকিংয়ের জন্য এই নতুন প্রযুক্তির রাডার আনা হচ্ছে। বলেন, রাডার কেনার বিষয়ে যে ধরনের দুর্নীতির চেষ্টা করা হয়েছিলো তাও বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। মন্ত্রী থাকাকালীন সময়ে কাউকেই এই খাতে দুর্নীতি করতে দেয়া হবে না বলে হুঁশিয়ার দেন মাহবুব আলী।
বিমান বিশ্লেষক কাজী ওয়াহিদুল আলম বলেন, অনেক আগেই শাহজালালের রাডার প্রতিস্থাপন করা উচিত ছিল। কারণ এ রাডার বিশ্বে এখন অচল। তাই আধুনিক প্রযুক্তির নতুন রাডার স্থাপন খুবই জরুরি হয়ে পড়েছে। নতুন এই রাডারের কারনে বিমানবন্দরের কার্যক্রম আরো গতিশীল হবে বলেও আশা করেন তিনি।
বলেন, রাডার ক্রয়ের ক্ষেত্রে যে দুর্নীতি করার চেষ্টা করা হয়েছিলো তা সরকার যেভাবে বন্ধ করেছে তা প্রশংসার দাবিদার। সংশ্লীষ্টরা যদি এভাবে কাজ করতে থাকে তাহলে দ্রুততম সময়ের মধ্যে এভিয়েশন খাত দুর্নীতিমুক্ত হবে। সম্পাদনা : সমর চক্রবর্তী




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]