• প্রচ্ছদ » প্রথম পাতা » রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে খালেদা জিয়াকে কারাগারে রাখা হয়েছে, বললেন খন্দকার মাহবুব


রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে খালেদা জিয়াকে কারাগারে রাখা হয়েছে, বললেন খন্দকার মাহবুব

আমাদের নতুন সময় : 06/12/2019

নূর মোহাম্মদ : খালেদা জিয়ার আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেন, আদালতে যা ঘটেছে তার সব দায়-দায়িত্ব অ্যাটর্নি জেনারেলের। কেননা বেগম জিয়ার মামলায় মেডিকেল রিপোর্টের দরকার হয় না। এ মামলায় সর্বোচ্চ সাজা সাত বছর। তিনি দীর্ঘ দিন ধরে কারাগারে রয়েছেন। অথচ এই ধরনের মামলায় শত শত আসামি জামিন নিয়ে যাচ্ছেন। রাজনৈতিক প্রতিহিংসার জন্য, রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে বেগম জিয়াকে কারাগারে রাখা হয়েছে। রাজনৈতিক সদিচ্ছা ছাড়া খালেদা জিয়াকে আইনী প্রক্রিয়ায় মুক্ত করা যাবে না। তারই প্রমাণ আজকে দেখা গেছে।
খালেদা জিয়াকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনা করে তিনি বলেন, একটি বিচারাধীন মামলায় তিনি বলেছেন, খালেদা জিয়া রাজার হালে আছেন। আল্লাহ যদি কোনো দিন সুযোগ দেন, বাংলার জনগণ তাকেও এমনি হয়তো সুযোগ দেবেন।
সাবেক আইনমন্ত্রী ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, তুচ্ছ, মিথ্যা অভিযোগে বেগম খালেদা জিয়াকে শাস্তি দেয়া হয়েছে। আমাদের প্রত্যাশা ছিল বেগম জিয়ার মুক্তির আদেশ হবে। সরকারের রাজনৈতিক প্রভাবের কারনেই খালেদা জিয়ার মুক্তি এতদিন বিলম্বিত হচ্ছে। আমি মনে করি শুধুমাত্র মানবিক কারনে তার জামিন চাওয়া হয়েছে। মেরিটে আলোচনা করেনি। শুধুমাত্র তার স্বাস্থ্যগত কারনে জামিন দেয়া উচিত।
জয়নুল আবেদীন বলেন, বেগম জিয়া ভালো হিসেবে কারাগারে গিয়েছেন। কিন্তু তিনি ধুকে ধুকে মরছেন চিকিৎসার অভাবে। তার যে চিকিৎসা পাওয়ার কথা সেই চিকিৎসা তিনি পাচ্ছেন না। দিন দিন বেগম জিয়া পঙ্গু হয়ে যাচ্ছেন। তার হাত-পা বাকা হয়ে যাচ্ছে। এ অবস্থায় তার চিকিৎসা এ দেশে সম্ভব নয়। তিনি এখন খেতেও পারছেন না। বেগম জিয়াকে সরকার মৃত্যুর মুখে ঠেলে দিয়েছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। সম্পাদনা : ইকবাল খান




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]