• প্রচ্ছদ » » বহু বছর পর আমাদের ছেলেমেয়েরা উচ্চ-শিক্ষাস্তরে দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে শাসকের সব ধান্দাবাজি বুঝে রুখে দাঁড়াচ্ছে


বহু বছর পর আমাদের ছেলেমেয়েরা উচ্চ-শিক্ষাস্তরে দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে শাসকের সব ধান্দাবাজি বুঝে রুখে দাঁড়াচ্ছে

আমাদের নতুন সময় : 08/12/2019

রাখাল রাহা

প্রথমে প্রাইমারী স্কুল, হাইস্কুল ও কলেজগুলোতে টাকা নিয়ে গাধা ধরনের শিক্ষক নিয়োগ দেওয়া শুরু হয়, এরপর সেইসব গাধারা যেসব ছাত্র পড়ায় তাদের মধ্য থেকে আবার আরো গাধাগুলোকে আরো আরো টাকার বিনিময়ে শিক্ষক হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হতে থাকে। এভাবে দশকের পর দশক চালিয়ে ওরা আমাদের শিক্ষা-প্রতিষ্ঠানগুলোকে এক-একটা গর্ধবশালায় পরিণত করেছে। আর এটা যেন আমরা বুঝতে না পারি সেজন্যই ওরা গাদা গাদা জিপিএ, পিএসসি, জেএসসি, সৃজনশীল এসব নতুন নতুন মোয়া আর ছেলেমেয়েদের জন্য একশো-দুশো টাকা করে গাদা গাদা বৃত্তি নামের মুড়কির প্রচলন করেছে। কিন্তু ওদের ছেলেমেয়েরা কেউ সেই মোয়া খায় না, সেই মুড়কিও নেয় না। এই ব্যবস্থারই ওরা নাম দিয়েছে বিশ্বের বিস্ময়। আসলেই হাতে ধরে দেশের কোটি কোটি মানব সম্পদ ধ্বংস করার এমন বিস্ময়কর আয়োজন দুনিয়ার আর কোথাও আছে কিনা কে জানে। আজ বহু বছর পর আমাদের ছেলেমেয়েরা উচ্চ-শিক্ষাস্তরে দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে শাসকের এইসব ধান্দাবাজি বুঝে রুখে দাঁড়াচ্ছে। তাদের পাশে দাঁড়ানো আজ প্রতিটি শিক্ষক ও অভিভাবকের কাজ।




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]