• প্রচ্ছদ » সর্বশেষ » অনেক পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এখন দিনে সরকারি আর রাতে বেসরকারি, বললেন রাষ্ট্রপতি


অনেক পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয় এখন দিনে সরকারি আর রাতে বেসরকারি, বললেন রাষ্ট্রপতি

আমাদের নতুন সময় : 10/12/2019

সমীরণ রায় : সোমবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে ৫২তম সমাবর্তনে তিনি এ কথা বলেন ।
রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ দেশের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে বড় অংকের টাকার বিনিময়ে সান্ধ্যকালীন শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা হয়ে আসছে। টাকার বিনিময়ে এই সান্ধ্যকালীন শিক্ষা কার্যক্রম কোনোভাবেই কাম্য হতে পারে না।
সোমবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় খেলার মাঠে ৫২তম সমাবর্তনে তিনি আরও বলেন, বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর কিছু শিক্ষক নিয়মিত কোর্সের ব্যাপারে অনেকটা উদাসীন। কিন্তু ইভিনিং কোর্স, ডিপ্লোমা কোর্স, প্রাইভেট বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস নেয়ার ব্যাপারে তারা খুবই সিরিয়াস। কারণ, এগুলোতে নগদ টাকা থাকে। শিক্ষকদের এটা ইন্টারন্যাশনাল বিজনেস। এতে ২২টা কোর্স। প্রতি কোর্সে সাড়ে ১০ হাজার টাকা। এতে দুই লাখ ৩০ হাজার টাকার ওপরে হয়। এর অর্ধেক শিক্ষকরা পায়, আর অর্ধেক বিভাগ পায়। বিভাগের টাকা কী হয় জানি না, কিন্তু শিক্ষকরা পাচ্ছেন। আমি এটাও জানি, যাদের শুধু পিএইচডি আছে, শুধু তারাই ক্লাস নেয়। মনে রাখবেন, বিশ্ববিদ্যালয় চলে জনগণের টাকায়। সুতরাং, এর জবাবদিহিও জনগণের কাছে।
বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে গুচ্ছ পদ্ধতিতে পরীক্ষা নেয়ার আহ্বান জানিয়ে ডাকসু নেতাদের সমালোচনা করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে আচার্য আরও বলেন, এগুলো আমি কেন বলব? ডাকসুর নেতাদেরই তো এসব দাবি তোলার কথা। এটা আমাকে কেন বলতে হবে? এ দাবিগুলো তো ছাত্র নেতাদের করা উচিৎ। তারা এ ব্যাপারে কোনো কথা বলে না বরং তাদের ব্যাপারে অন্য এমন সব কথা শুনি যেগুলো আমার ভালো লাগে না। এর বেশি বলে আমি কাউকে হেয় করতে চাই না। ডাকসু নেতাদের এমন কিছু করা উচিত যাতে সাধারণ ছাত্রদের কল্যাণ হয়।
ডাকসু নির্বাচনের সময় ওঠা অসঙ্গতির প্রতি ইঙ্গিত করে রাষ্ট্রপতি বলেন, ডাকসু নির্বাচনের জন্য কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ জানিয়েছিলাম। তারা সেটা করেছেন সেজন্য আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ জানাই। তবে নির্বাচনের সময় কিছু কিছু কথা বা অপ্রীতিকর ঘটনার কথা শুনেছি। আমি আশা করব ভবিষ্যতে যখন আবার ডাকসু নির্বাচন হবে তখন যাতে করে আরও সুন্দর আরও সুষ্ঠুভাবে এই ডাকসু নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। শিক্ষার্থীরা জ্ঞান অর্জনে বিশ্ববিদ্যালয়ে আসে, লাশ হয়ে ফিরতে নয় ,বলেন রাষ্ট্রপতি।
এর আগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ৫২তম সমাবর্তনে রাষ্ট্রপতি ও বিশ্ববিদ্যালয়ের আচার্য স্নাতক ও গবেষকদের হাতে সনদ তুলে দেন। এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন জাপানের টোকিও বিশ্ববিদ্যালয়ের কসমিক রে রিসার্চ ইনস্টিটিউটের পরিচালক অধ্যাপক ড. তাকাকি কাজিতা। তাকেও সম্মানসূচক ‘ডক্টর অব সাইন্স’ ডিগ্রি দেয়া হয়। সম্পাদনা : সমর চক্রবর্তী




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : info@amadernotunshomoy.com