চীনা নাগরিককে হত্যার পর মাটি চাপা, আটক ৬

আমাদের নতুন সময় : 12/12/2019

 

মাসুদ আলম : রাজধানীর বনানীতে একটি বাড়ির পেছনে ফাঁকা জায়গায় মাটিতে পুঁতে রাখা গাও জিয়ানওয়ে নামে এক বিদেশি নাগরিকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বুধবার দুপুরে বনানীর ২৩ নম্বর রোডের ৮২ নম্বর বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। ওই ভবনের ৬ষ্ঠ তলায় থাকতেন তিনি। এ ঘটনায় ড্রাইভার, সিকিউরিটি গার্ডসহ ৬ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ।
জানা গেছে, সকালে বাসার কাজের লোকজন ভবনের পাশের খোলা জায়গায় কাজ করার সময় মাটি থেকে শরীরের অংশ বেরিয়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। ওই ভবনের দেয়াল ও সীমানাপ্রাচীরের মাঝের ফাঁকা জায়গায় লাশটি পুঁতে রাখা ছিলো। চুল ও পা বাইরে বেরিয়ে ছিল। কান ও মুখে রক্ত ছিল। গলায়ও দাগ আছে। তার পরনে ছিলো ট্রাউজার। বাড়িটির মালিক একজন আইনজীবী। গাওয়ের বয়স আনুমানিক ৪৭ বছর। তিনি ঢাকায় একাই থাকতেন। চীন থেকে মাঝেমধ্যে তার স্ত্রী-সন্তানেরা বেড়াতে আসতেন। ২০ দিন আগে গাওয়ের স্ত্রী ও সন্তানেরা চীনে ফিরে গেছেন। আজ তার পরিবারের ঢাকায় আসা কথা রয়েছে। তিনি পাথরের ঠিকাদারি করতেন।
ভবনের ম্যানেজার বাপ্পি সিনহা জানান, মঙ্গলবার বিকেলেও তার সঙ্গে আমার দেখা হয়েছে। সে গত একবছর ধরে এ বাসায় আছেন। সস্প্রতি তার পরিবার চীনে ফেরত যায়।
পুলিশের গুলশান বিভাগের ডিসি সুদীপ কুমার চক্রবর্তী জানান, ধারণা করা হচ্ছে মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর কোন এক সময় তাকে হত্যা করা হয়েছে। ব্যবসায়ী বিরোধের জেরে শ্বাসরোধে হত্যা করা হতে পারে। তিনি যে ফ্ল্যাটে থাকতেন তার সামনের অংশে অফিস ছিলো। সেখানে একটি জুতার ওপর কয়েক ফোটা রক্তের দাগ এবং ধস্তাধস্তির আলামত পাওয়া গেছে। মূল দরজা খোলা ছিল। ময়নাতদন্তের পর মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। গত ৭ ডিসেম্বর চীন থেকে ঢাকায় ফেরেন তিনি। একাধিক বিষয়কে সামনে রেখে তদন্ত চলছে।
বনানী থানার ওসি নূরে আজম মিয়া জানান, পদ্মা সেতুতে পাথর সরবরাহসহ সরকারের কয়েকটি মেগা প্রকল্পে কাজ করতেন। সিসিটিভির ফুটেজ যাচাই বাচাই চলছে। সম্পাদনা : সমর চক্রবর্তী




সর্বশেষ সংবাদ

সম্পাদক ও প্রকাশক ঃ নাঈমুল ইসলাম খান

১৩২৭, তেজগাঁও শিল্প এলাকা (তৃতীয় তলা) ঢাকা ১২০৮, বাংলাদেশ। ( প্রগতির মোড় থেকে উত্তর দিকে)
ই- মেইল : [email protected]